Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ৩ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : শুক্রবার, ১৪ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৩ অক্টোবর, ২০১৬ ২৩:১৮
কোনো চুরিকেই প্রশ্রয় দেওয়া হবে না
নিজস্ব প্রতিবেদক
কোনো চুরিকেই প্রশ্রয় দেওয়া হবে না

তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেছেন, কোনো চুরিকেই প্রশ্রয় দেওয়া হবে না। ছবি ও গান চুরির জন্য র‌্যাব আগেও অভিযান চালিয়েছে। সে অভিযান এখন ঘন ঘন চালানো হচ্ছে। কারণ সরকার সব ধরনের চুরি বন্ধ করতে চায়। গতকাল এফডিসিতে পাইরেসি চক্রের নয় সদস্য গ্রেফতারের ঘটনায় র‌্যাব আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। তথ্যমন্ত্রী বলেন, সরকার শুধু জঙ্গি দমনে ব্যস্ত নয়; একদিকে যেমন জঙ্গি দমন করছে, অন্যদিকে উন্নয়নও করছে। তিনি উল্লেখ করেন, চুরি বন্ধে সরকার সব ধরনের পদক্ষেপ নিচ্ছে। এফডিসিতে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে পুনর্জাগরণ হয়েছে। এফডিসিকে আধুনিকায়ন করা হচ্ছে। ছবি বা অডিও যারা চুরি করবে তাদের বিচার হবে। এতিমের টাকা যারা চুরি করবে তাদের আদালতে যেতে হবে। যারা মানুষ পোড়াবে, হত্যা করবে তাদের আদালতে যেতে হবে। এমনকি হাকিম ও সেলিম যারা ভুয়া টিভি খুলেছে তারা কেউই মাফ পাবে না। অনুষ্ঠানে র‌্যাবের মহাপরিচালক বেনজীর আহমেদ বলেন, পাইরেসির বিষয়ে আমরা সবার সহযোগিতা নিয়ে অনেকটা নির্মূল করতে পেরেছি। ভুয়া-অবৈধ টিভি তৈরি করে যারা পাইরেসি করছে তাদের ধরেছি। পাইরেসি বন্ধে তথ্য আদান-প্রদানের জন্য র‌্যাবের সঙ্গে প্রত্যেক শিল্পীর সরাসরি কন্টাক্ট থাকবে। এর আগে পাইরেসি চক্রের নয় সদস্য গ্রেফতারের বিষয়ে র‌্যাবের আইন ও গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার মুফতি মাহমুদ খান বলেন, র‌্যাব অভিযান চালিয়ে পাইরেটেড ইকুইপমেন্ট, সিডি এমনকি পিস্তলসহ নয়জনকে গ্রেফতার করেছে। এরা পাইরেসি চক্রে নতুন মাত্রা যোগ করেছে। নতুন নতুন কৌশল নিয়েছিল। তারা প্রাইভেট চ্যানেল খুলেছে এবং পাইরেসিকে প্রতিষ্ঠানের রূপ দিয়েছে। নিজেদের অফিস খুলেছে রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে। তাদের পাইরেটেড কপিগুলো বেশির ভাগই ঢাকার বাইরে সরবরাহ করা হতো। আমরা আটকদের কাছ থেকে অনেক তথ্য পেয়েছি। পাইরেসি চক্রের গ্রেফতারকৃতরা হলেন কথিত পাইরেসি সম্রাট সেলিম খান, মো. শাহেদ আলী, মো. হোসাইন মোল্লা, মো. রুহুল আমীন ওরফে আল-আমীন, মো. শফিকুল ইসলাম, মো. হাফিজুর রহমান ওরফে বাবু চৌধুরী, মো. আলম, মামুন হোসেন মোল্লা ও শাকিল খান। এ ছাড়াও রাজধানীর বাড্ডায় এইচ বাংলা ও নেহা নামের দুটি ভুয়া টিভির মালিকসহ চারজনকে আটকের পর বিপুল পাইরেটেড যন্ত্রপাতি জব্দ করা হয় বলে জানায় র‌্যাব। সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন র‌্যাবের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (অপারেশন) কর্নেল আনোয়ার লতিফ খান, এফডিসির ব্যবস্থাপনা পরিচালক তপন কুমার, অভিনেতা ফারুক, মাসুদ পারভেজ সোহেল রানা, ইলিয়াস কাঞ্চন, ওমর সানী, আমিন খান, মিজু আহমেদ, জায়েদ খান, অভিনেত্রী অঞ্জনা, মৌসুমী, কেয়া, কণ্ঠশিল্পী ওয়াহেদ খান প্রমুখ।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow