Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৩ মার্চ, ২০১৭

প্রকাশ : শনিবার, ৪ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০ টা আপলোড : ৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২৩:২৭
রেলভবনে টেন্ডার ফেলতে আসা দুই চীনা নাগরিককে অপহরণের চেষ্টা
নিজস্ব প্রতিবেদক

রাজধানীর রেলভবনে বৃহস্পতিবার টেন্ডার দাখিল করতে আসা দুজন চীনা নাগরিককে অস্ত্র উঁচিয়ে অপহরণের ব্যর্থ চেষ্টা চালায় চার-পাঁচ জনের দুর্বৃত্ত দল। তারা চীনা কোম্পানি ‘পাওয়ার চায়না লিমিটেড’-এর প্রতিনিধি হিসেবে ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ ডুয়েলগেজ রেললাইন স্থাপন প্রকল্পের কাজের জন্য টেন্ডার ফেলতে এসেছিলেন। বেলা পৌনে ১২টায় তারা রেলভবনে ঢুকে টেন্ডারের কাগজপত্র দাখিলের জন্য ষষ্ঠ তলায় যেতে লিফটের জন্য অপেক্ষা করছিলেন। দুর্বৃত্তরা হঠাত্ এসে দুই চীনা নাগরিককে জোর করে লিফটে ঢুকিয়ে নবম তলায় নিয়ে যায়। অন্যান্য তলার চেয়ে নবম তলা তুলনামূলক শান্ত। সেখানে আশপাশে লোকজন আছে টের পেয়ে তারা বাঁচাও বাঁচাও বলে চিৎকার করেন। চিৎকার শুনে রেলকর্মীরা ছুটে এলে দুর্বৃত্তরা দ্রুত লিফটে ঢুকে পালিয়ে যায়।

পরে রেলওয়ে কর্মকর্তাদের সহায়তায় চীনা নাগরিকরা ষষ্ঠ তলায় গিয়ে প্রকল্প পরিচালকের কামরায় টেন্ডার বাক্সে টেন্ডার ফেলেন। দুপুর সাড়ে ১২টায় টেন্ডার খোলা হয়। দেখা যায় সর্বনিম্ন দর উদ্ধৃত করেছে চায়না পাওয়ার লি.।

রেলভবন থেকে বেরিয়ে নিরাপত্তা চাইলে দুই চীনা নাগরিককে কর্তব্যরত পুলিশ পাহারা দিয়ে মত্স্য ভবন মোড় পর্যন্ত নিয়ে যায়। তারা যাতে টেন্ডার ফেলতে না পারেন সেজন্য তাদের আটকে রাখতে চেয়েছিল দুর্বৃত্তরা— এ রকমই সন্দেহ করছেন রেল কর্মকর্তারা। জানা গেছে, রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক আশ্বাস দিয়েছেন, বিধি অনুসারে সর্বনিম্ন দরদাতাই কাজ পাবেন। কাউকে হস্তক্ষেপ করতে দেওয়া হবে না।

ডিএমপির রমনা বিভাগের উপ-কমিশনার মারুফ হোসেন সর্দার গতকাল জানান, দুর্বৃত্তদের পুলিশ খুঁজছে; তাদের ধরতে জোর চেষ্টা চলছে।

২৫০ কোটি টাকা ব্যয়সাপেক্ষ ঢাকা-নারায়ণগঞ্জ ডুয়েলগেজ রেললাইন স্থাপন প্রকল্পের কাজ পাওয়ার জন্য দেশি-বিদেশি মিলিয়ে পাঁচটি কোম্পানি টেন্ডার দাখিল করে। দর উদ্ধৃত করা হয়েছে : পাওয়ার চায়না লিমিটেড ২৫৫ কোটি ১২ লাখ, তমা কনস্ট্রাকশন অ্যান্ড কোম্পানি লি. ২৯০ কোটি ৩ লাখ, মির আক্তার র‍্যানকেন যৌথ উদ্যোগ ৩১৪ কোটি ৭৫ লাখ, ম্যাক্স ইনফ্রাস্ট্রাকচার লি. ৩১৮ কোটি ৮১ লাখ ও চীনের সিআরএফজি ইনফ্রাটেক যৌথ উদ্যোগ ৩৫৭ কোটি ৪৪ লাখ টাকা।

 

 

এই পাতার আরো খবর
up-arrow