Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বুধবার, ২২ নভেম্বর, ২০১৭

ঢাকা, বুধবার, ২২ নভেম্বর, ২০১৭
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০ টা আপলোড : ৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২৩:১৭
ইসিতে জনমতের প্রতিফলন
নিজস্ব প্রতিবেদক
ইসিতে জনমতের প্রতিফলন

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, নতুন নির্বাচন কমিশন (ইসি) গঠনে জনমতের প্রতিফলন ঘটেছে। সুশীল সমাজসহ সবার কাছেই নতুন ইসি গ্রহণযোগ্যতা পেয়েছে।

গতকাল রাজধানীর একটি হোটেলে তৃতীয় শীতলক্ষ্যা সেতুর নির্মাণকাজের চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন। ‘নতুন ইসি গঠনে প্রধানমন্ত্রীর পছন্দের প্রতিফলন ঘটেছে’ বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের এমন বক্তব্যের জবাবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, সমালোচনা বিএনপির পুরনো অভ্যাস। তারা সব সময় বিচার মানি কিন্তু তাল গাছ আমার এ নীতিতেই থাকে। রাষ্ট্রপতি নিজে একতরফা কোনো সিদ্ধান্ত নেননি। সার্চ কমিটি হয়েছে, তারা আলাপ-আলোচনা করেছেন। সার্চ কমিটি দেশের বিশিষ্টজনদের সঙ্গেও মতবিনিময় করেছে। প্রথমে ১২ জনের সঙ্গে এবং আবার পাঁচজনের সঙ্গে আলোচনা করেছেন যাতে কোনো খুঁত না থাকে। এর পরও আমার মনে হয় এটি নিয়ে কোনো দ্বিধা থাকা উচিত নয়। ওবায়দুল কাদের বলেন, আমার বিশ্বাস বিএনপি পরবর্তী নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবে। আর যদি অংশগ্রহণ না করে তাহলে বিএনপি আরও দুর্বল হয়ে যাবে। অতীতে নির্বাচনে না গিয়ে তারা যে ভুল করেছে তা আর আগামীতে করবে না।

নাসিম ওসমানকে স্মরণ করলেন কাদের : তৃতীয় শীতলক্ষ?্যা সেতু নির্মাণকাজের চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে নারায়ণগঞ্জ-৫ (শহর-বন্দর) আসনের প্রয়াত এমপি এ কে এম নাসিম ওসমানকে স্মরণ করলেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, এই শীতলক্ষ্যা সেতু নির্মাণের জন্য প্রয়াত এমপি নাসিম ওসমান প্রায়ই আমাকে ফোন করতেন। মাঝেমধ্যেই মন্ত্রণালয়ে এসে ব্রিজ নির্মাণের দাবি জানাতেন। তিনি বলতেন, নির্বাচন এলেই এই শীতলক্ষ্যায় ব্রিজ নির্মাণের জন্য সবাই প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। কেউ নির্মাণ করেননি। নারায়ণগঞ্জের মানুষের প্রাণের দাবি সেতু নির্মাণ করতেই হবে। এলাকার মানুষ আমার বাবাকে ভালোবাসতেন, এখন আমাদের ভালোবাসেন। আমাদের ওপর আস্থা আছে বলেই ভোট দিয়ে সংসদে পাঠিয়েছেন। ওবায়দুল কাদের বলেন, সেতু নির্মাণের জন্য চুক্তি স্বাক্ষর হলেও নাসিম ওসমান তা দেখে যেতে পারলেন না। নাসিম ওসমান গণমানুষের নেতা ছিলেন বলেই জনগণের দাবির কথা বার বার বলতেন।

বাংলাদেশ সরকারের পক্ষে চুক্তিতে স্বাক্ষর করেন সড়ক ও জনপথ বিভাগের প্রধান প্রকৌশলী ইবনে আলম হাসান এবং সিনো-হাইড্রো করপোরেশন লিমিটেডের পক্ষে ভাইস প্রেসিডেন্ট লিও লিওশান। অনুষ্ঠানে এমপি এ কে এম শামীম ওসমান এবং সেলিম ওসমান উপস্থিত ছিলেন।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow