Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : শনিবার, ৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ টা প্রিন্ট ভার্সন আপলোড : ৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ২৩:৩৭
আইনজীবীদের বললেন খালেদা
আগে চিকিৎসা জরুরি আইনগতভাবে লড়ব
নিজস্ব প্রতিবেদক
bd-pratidin

রাজধানীর নাজিমউদ্দিন রোডের পুরনো কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দী বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন দলের আইনজীবী নেতা ব্যারিস্টার জমিরউদ্দিন সরকারসহ চারজন।

গতকাল বিকাল সাড়ে ৪টায় তারা কারাগারে প্রবেশ করেন। প্রায় এক ঘণ্টা তারা খালেদা জিয়ার সঙ্গে আলাপ-আলোচনা করেন। অন্য আইনজীবীরা হলেন অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন, ব্যারিস্টার এ জে মোহাম্মদ আলী ও অ্যাডভোকেট আবদুর রেজ্জাক খান। এদিকে আগামীকাল রবিবার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের সাক্ষাৎ চেয়ে চিঠি পাঠিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তার নেতৃত্বে দলের ১০ সদস্যের স্থায়ী কমিটির সদস্যরা এই সাক্ষাৎ চেয়েছেন। সাক্ষাতের পর সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন বলেন, ‘আমরা বিএনপি চেয়ারপারসনের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলাম। তাঁর শারীরিক অবস্থা অত্যন্ত খারাপ। ভালোভাবে কথা বলতে পারছেন না। প্রচণ্ড ব্যথায় কষ্ট পাচ্ছেন। দ্রুত তাঁকে বিশেষায়িত হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসা করানো প্রয়োজন। অবস্থা এমনই খারাপ যে, তাঁর পক্ষে কোর্টে যাওয়াও সম্ভব হবে না।’ তিনি বলেন, বেগম জিয়া তাদের বলেছেন, ‘আইনিভাবে মোকাবিলায় প্রস্তুত তিনি। কিন্তু তাঁর শারীরিক অবস্থা খুবই খারাপ। তাই আগে চিকিৎসা জরুরি। আমাদের কাছে তিনি বলেছেন, তাঁর বাম পা ও হাত অবশ হয়ে যাচ্ছে। তাই আমরা বলছি, বিএনপি চেয়ারপারসনের বিচারকাজের আগে চিকিৎসা করাতে হবে।’ অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন বাংলাদেশ প্রতিদিনকে আরও বলেন, ‘এক ঘণ্টার সাক্ষাতে আমরা খালেদা জিয়ার মামলার কার্যক্রম নিয়ে কথা বলেছি। কোনো রাজনৈতিক বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়নি। রাজনীতির বিষয়গুলো নিয়ে তিনি দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের সঙ্গে কথা বলেন। তবে খালেদা জিয়া শারীরিকভাবে অসুস্থ থাকলেও মানসিকভাবে যথেষ্ট শক্ত মনে হয়েছে।’

এই পাতার আরো খবর
up-arrow