Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : মঙ্গলবার, ২৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ টা প্রিন্ট ভার্সন আপলোড : ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ২৩:২১
ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির উদ্বেগ
ডিজিটাল আইন স্বাধীন সাংবাদিকতায় বাধা
নিজস্ব প্রতিবেদক

সংসদে সদ্য পাস হওয়া ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন স্বাধীন সাংবাদিকতার অন্তরায় বলে মনে করে ঢাকায় কর্মরত বিভিন্ন গণমাধ্যমের রিপোর্টারদের একমাত্র সংগঠন ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটি (ডিআরইউ)। এ আইনের কয়েকটি ধারা স্বাধীন সাংবাদিকতায় প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করতে পারে; যা সংবাদকর্মীদের হয়রানির মুখে ফেলতে পারে বলে উল্লেখ করে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে ডিআরইউ। সাংবাদিকসমাজের পরামর্শ ও মতামত উপেক্ষা করে এ আইন পাস করায় তীব্র নিন্দাও জানিয়েছেন ডিআরইউ নেতৃবৃন্দ। সংগঠনটি এক বিবৃতিতে গতকাল এ নিন্দা জানায়।

ডিআরইউ কার্যনির্বাহী কমিটির পক্ষ থেকে সভাপতি সাইফুল ইসলাম ও যুগ্মসাধারণ সম্পাদক মঈন উদ্দিন খান সোমবার এক বিবৃতিতে বলেন, বহুল আলোচিত এই বিলের খসড়া মন্ত্রিসভায় অনুমোদনের পর থেকেই সাংবাদিকদের বিভিন্ন সংগঠন সুনির্দিষ্ট কিছু ধারায় আপত্তি জানিয়ে আসছিল। সরকারের সংশ্লিষ্ট মন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠক করে আপত্তিকর ধারাগুলো বাদ দেওয়ার দাবি জানানো হয়েছিল। বিলটি সংসদে উত্থাপনের পর সংসদীয় কমিটিতেও সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ সুনির্দিষ্ট সুপারিশ দেন। নেতৃবৃন্দ বলেন, মতপ্রকাশের অন্তরায় ও স্বাধীন সাংবাদিকতার বাধা হতে পারে এমন কোনো ধারা আইনে থাকবে না বলে সরকারের পক্ষ থেকে বার বার আশ্বাস দেওয়া হলেও, আমরা উদ্বেগের সঙ্গে লক্ষ্য করলাম সাংবাদিকদের সব মতামত ও সুপারিশ উপেক্ষা করেই ১৯ সেপ্টেম্বর জাতীয় সংসদে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন পাস করা হলো। এতে আমরা গভীরভাবে উদ্বিগ্ন। বিশেষ করে আইসিটি আইনের বিতর্কিত ৫৭ ধারা বাতিল করে সেগুলো ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের বিভিন্ন ধারায় ছড়িয়ে দেওয়া এবং ব্রিটিশ আমলের অফিশিয়াল সিক্রেটস আইন অন্তর্ভুক্ত করা, বিনা পরোয়ানায় গ্রেফতার ও ডিজিটাল ডিভাইস জব্দ করার বিধান রাখায় সাংবাদিকদের নিগৃহীত হওয়ার আশঙ্কা সৃষ্টি হয়েছে। এসব বিধান মৌলিক মানবাধিকার ও গণতন্ত্রের সঙ্গে অসামঞ্জস্যপূর্ণ। আইনটি তথ্য অধিকার আইনের সঙ্গেও সাংঘর্ষিক।

 ডিআরইউ নেতৃবৃন্দ সাংবাদিকসমাজের দেওয়া সুপারিশ আমলে নিয়ে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন সংশোধন, আপত্তিকর ও নিবর্তনমূলক ধারাসমূহ বাতিল করার আহ্বান জানান।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow