Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ১৫ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ টা প্রিন্ট ভার্সন আপলোড : ১৪ নভেম্বর, ২০১৮ ২২:৫৪
নয়া পল্টন নিয়ে যত কথা
মির্জা আব্বাসের নেতৃত্বে হামলা : কাদের
নিজস্ব প্রতিবেদক

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের অভিযোগ করেছেন, নির্বাচন বানচাল করতেই সম্পূর্ণ বিনা উসকানিতে মির্জা আব্বাসের নেতৃত্বে বিএনপি নেতা-কর্মীরা পুলিশের ওপর হামলা চালিয়েছেন। কানাডার আদালত বিএনপিকে সন্ত্রাসী দল হিসেবে রায় দিয়েছে। বিএনপি আবারও প্রমাণ করল, তারা সন্ত্রাসী দল। গতকাল বিকালে আওয়ামী লীগ সভাপতির ধানমন্ডি কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। ওবায়দুল কাদের বলেন, সন্ত্রাসী এ হামলায় ১৩ জন পুলিশ সদস্য মারাত্মক আহত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। পাল্টা আক্রমণে না গিয়ে ‘নীরব দর্শকের ভূমিকায়’ ছিল পুলিশ। তিনি বলেন, নির্বাচন পেছানোর দাবিতে নয়, নির্বাচন বানচালের ষড়যন্ত্রে বিএনপি এ হামলায় উসকানি দিয়েছে। তারা পরিকল্পিতভাবে নয়াপল্টনে পুলিশের ওপর হামলা চালিয়ে নিজেদের বীরত্ব জাহির করল। নির্বাচন বানচালের যে ষড়যন্ত্রের আশঙ্কা আমরা করেছিলাম, সেই ষড়যন্ত্রই কি তারা শুরু করে দিল? তিনি বলেন, পরিষ্কার কথা বলতে চাই, ইলেকশন হবে। যত ষড়যন্ত্র, চক্রান্ত আর নাশকতা হোক— জনগণ ভোট দিতে আসবে। তারা সাম্প্রদায়িক অপশক্তিকে পরাজিত করবে। ওবায়দুল কাদের বলেন, তারা আজ প্রকাশ্য দিবালোকে অরাজকতা, নাশকতা সংঘটিত করেছে। চক্রান্তের দরজা প্রকাশ্যে খুলে দিয়েছে। তাদের সেই দুরভিসন্ধির ব্যাপারে নির্বাচন কমিশনের বক্তব্য কী, তা আমরা জানতে চাই। এ সময় বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের উদ্দেশে ওবায়দুল কাদের বলেন, ফখরুল ইসলামের মিথ্যাচার আজ প্রকাশিত। বিএনপি নেতা-কর্মীদের ওপর পুলিশ হামলা করেছে, এ কথা বলে ফখরুল ইসলাম আজও মিথ্যাচার করেছেন।

দলের সিদ্ধান্ত না মানলে বহিষ্কার : আগামী নির্বাচনে প্রার্থীদের বিষয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, ধানমন্ডিতে মনোনয়নপ্রত্যাশীদের জায়গা দেওয়া সম্ভব নয়। এ কারণে সেটি পরিবর্তন করা হয়েছে। সবাই দলের সভানেত্রীর দোয়া নিতে চান। পরে গণভবনে দলের মনোনয়নপ্রত্যাশীদের উদ্দেশে শেখ হাসিনা বলেছেন ঐক্যবদ্ধ থেকে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বিজয় ছিনিয়ে আনতে। প্রার্থীরাও কথা দিয়েছেন ঐক্যবদ্ধ থাকবেন। ঐক্যবদ্ধ না থেকে কেউ যদি দলের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে যান, তাহলে তাকে দল থেকে আজীবনের জন্য বহিষ্কার করা হবে বলে সভানেত্রী জানিয়েছেন। এক প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, দলের উপজেলা চেয়ারম্যান, মেয়র ও তৃণমূলের প্রতিনিধিদের সংসদ নির্বাচনের প্রার্থী না হওয়ার জন্য বলা হয়েছে। এর পরও কেউ মনোনয়ন ফরম কিনে থাকতে পারেন, তবে তাদের মনোনয়ন দেওয়া হবে না।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক ডা. দীপু মনি, আবদুর রহমান, প্রচার সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ, সাংগঠনিক সম্পাদক এ কে এম এনামুল হক শামীম, খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, দফতর সম্পাদক ড. আবদুস সোবহান গোলাপ, উপ-দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া প্রমুখ।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow