Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ৩ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : শুক্রবার, ২১ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ২০ অক্টোবর, ২০১৬ ২১:৪০
লিওকোপ্লাকিয়া বা মুখের ভিতর সাদা দাগ
লিওকোপ্লাকিয়া বা মুখের ভিতর সাদা দাগ

অতিরিক্ত ধূমপান, পান-সুপারি, শরীরে আয়রনের স্বল্পতা, ভিটামিনের অভাবে লিওকোপ্লাকিয়া অসুখ  দেখা দিতে পারে।

অনেক রোগের মধ্যে লিওকোপ্লাকিয়া মুখগহ্বরের একটি মারাত্মক রোগ। এই রোগ পুরুষ বা মহিলা যে কোনো বয়সের যে কারও হতে পারে। লিওকোপ্লাকিয়ার কারণে মুখের ভিতরে সাদা দাগ বা ঘায়ের সৃষ্টি হয়।

 

রোগটির সঠিক কারণ জানা না গেলেও অতিরিক্ত ধূমপান বা পান-সুপারির সঙ্গে চুন সেবন, এর সঙ্গে তামাকের ব্যবহার, ভিটামিন-৬, ভিটামিন-১২ বা অন্য কোনো ভিটামিনের অভাবে এই রোগ হতে পারে। আবার আয়রনের স্বল্পতা, হরমোন, শক্ত ব্রাশ দিয়ে জোরে জোরে দাঁত ব্রাশ করার কারণে মাড়িতে আঘাত, এইডস, ডায়াবেটিস, ক্যান্সারে আক্রান্ত রোগীর মুখেও এমন ঘা লক্ষ করা য়ায়। অনেক সময় দুশ্চিন্তা বা রাতে ঘুম কম হওয়ার কারণে, অ্যালার্জি বা ঠাণ্ডাজনিত কারণে, মুখের ভিতর ধারালো কোনো দাঁতের কারণে যদি কোনো জায়গা আঘাত প্রাপ্ত হয় বা মুখের ভিতর বা পাকস্থলীর প্রদাহজনিত কারণে এমনটি হতে পারে।

 

এই অসুখে মুখের ভিতর জিহ্বার দুপাশে এবং গালের দুপাশে এ ধরনের ঘা বা সাদা দাগ দেখা দেয়। এর ফলে মুখের ভিতর অস্বস্তি ভাব, জ্বালা জ্বালা ভাব অনুভূত হয়। ক্ষত স্থান ধীরে ধীরে বেড়ে যেতে পারে, এ ধরনের ঘা অনেক সময় এমনিতেই ভালো হয়ে যায়, তবে জটিল রূপও ধারণ করতে পারে। অনেক সময় এটি ক্যান্সারে রূপ নেয়।

তাই এ ধরনের উপসর্গ দেখা দিলে বাইরের সব ধরনের পানীয় এড়িয়ে চলুন। শক্ত, গরম, অতিরিক্ত মসলাযুক্ত খাবার এড়িয়ে চলা ভালো।

চকলেট, চা-কফি, ধূমপান, তামাকজাত দ্রব্য পান, সুপারি, চুন, অ্যালকোহল থেকে বিরত থাকা উচিত। অনেক দিনের পুরনো যে কোনো ঘা বা দাগ অবহেলা করবেন না। মুখের ভিতর অসুবিধা অনুভব হলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

 

এ ধরনের অসুবিধা ভিটামিন সাপ্লিমেন্টারি সেবন করা যেতে পারে। সামান্য গরম পানিতে লবণ ও বেকিং সোডা মিশিয়ে কুলি করুন। কাঁচা পিয়াজ খেতে পারেন, কারণ পিয়াজের সালফার ঘা শুকাতে সাহায্য করে। স্বাভাবিক খাবারের পর টক দই খেতে পারেন।

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত
এই পাতার আরো খবর
up-arrow