Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শুক্রবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : ১৯ অক্টোবর, ২০১৬ ০৯:৪০
স্বামীর পাশেই থাকবেন সিরিয়ার ফার্স্ট লেডি
অনলাইন ডেস্ক
স্বামীর পাশেই থাকবেন সিরিয়ার ফার্স্ট লেডি

শত বাধা-বিপত্তির মধ্যেও স্বামী বাসার আল-আসাদের পাশেই থাকার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন আসমা আল-আসাদ। যুদ্ধবিধ্বস্ত সিরিয়া থেকে সম্প্রতি নিরাপদ আশ্রয়ের প্রস্তাব দেয়া হয় আসমাকে।

কিন্তু আসমা তা প্রত্যাখ্যান করেছেন। কারণ আসমার বিশ্বাস, যারা এ ধরণের প্রস্তার দিচ্ছে তারা তার স্বামীর প্রেসিডেন্ট পদকে অবমাননা করেই এমনটা করেছেন।  

রাশিয়ার রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে আসমা আল-আসাদ এসব কথা বলেন। কিন্তু কে তাকে ওই প্রস্তাবটি দিয়েছে সে ব্যাপার মুখ খোলেননি সিরিয়ার ফার্স্ট লেডি।  

আসমা বলেন, আমি শুরু থেকেই এখানে আছি। আমি কখনই সিরিয়া ছেড়ে যাওয়ার কথা চিন্তা করিনি। হ্যাঁ, সিরিয়া ছেড়ে যাওয়ার কিংবা সিরিয়া থেকে পালিয়ে যাওয়ার সুযোগ আমি পেয়েছিলাম। আমাকে বলা হয়েছিল, সন্তানের নিরাপত্তা এমনকি আর্থিকভাবেও আমাকে সহায়তা দেয়া হবে। এসব লোকেরা কারা, তা বুঝতে অতি মেধাবী হওয়ার প্রয়োজন নেই। প্রেসিডেন্ট সম্পর্কে জনগণের মনোবল ভেঙে দেয়ার যে অব্যাহত প্রচেষ্টা চালানো হচ্ছে, এটা তারই অংশ।  

ব্রিটেনে বসবাসকারী সিরীয় পরিবারে জন্ম আসমার। ১৯৯৬ সালে লন্ডনের কিংস কলেজ থেকে স্নাতক করেন তিনি। পেশায় ব্যাংকার আসমা ২০০০ সালে বাসার আল-আসাদের সঙ্গে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হন। ওই বছরেই সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট পদে আসীন হন বাসার আল-আসাদ।  

 

বিডি প্রতিদিন/১৯ অক্টোবর, ২০১৬/ফারজানা

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow