Bangladesh Pratidin

ঢাকা, মঙ্গলবার, ৬ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : ২০ অক্টোবর, ২০১৬ ০২:২৬
পরমাণু সাবমেরিন আনতে রাশিয়ার সাথে ভারতের চুক্তি
অনলাইন ডেস্ক
পরমাণু সাবমেরিন আনতে রাশিয়ার সাথে ভারতের চুক্তি

সম্প্রতি ভারত রাশিয়া থেকে আরও একটি পরমাণু শক্তিচালিত অ্যাটাক সাবমেরিন আনতে রাশিয়ার সাথে চুক্তি স্বাক্ষর করেছে বলে রুশ সংবাদমাধ্যম সূত্রের খবরে জানানো হয়। আকুলা-২ শ্রেণির এই পারমাণবিক অ্যাটাক সাবমেরিন ভারতের হাতে আগে একটি আছে। তবে ভারত ভবিষ্যৎ পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখে আরও একটি আকুলা-২ সাবমেরিন তাদের নৌবাহিনীতে অন্তর্ভুক্ত করতে চাইছে। খবর আনন্দবাজার পত্রিকার।

রুশ নৌবাহিনী থেকে একটি মাল্টিপারপাস প্রোজেক্ট ৯৭১ নিউক্লিয়ার সাবমেরিন ভারতকে দেওয়ার বিষয়ে যে চুক্তি নিয়ে দীর্ঘ আলোচনা চলছিল, সে চুক্তিটি গোয়ায় স্বাক্ষরিত হয়েছে। প্রখ্যাত রুশ সংবাদপত্র ভেদোমোস্তি-তে প্রকাশিত একটি প্রতিবেদনে এই কথা জানানো হয়েছে।

জানা যায়, ভারতের নৌবাহিনীর হাতে আসা প্রথম পরমাণু শক্তিচালিত সাবমেরিনটি হল আইএনএস চক্র। সেটিও আকুলা-২ শ্রেণির ডুবোজাহাজ। আর সেটিও রাশিয়ার কাছ থেকে ১০ বছরের লিজে আনা হয়েছিল। ২০১২-র এপ্রিলে আইএনএস চক্র ভারতীয় নৌবাহিনীতে অন্তর্ভুক্ত হয়। কয়েক বছরের মধ্যেই সেই লিজের মেয়াদ শেষ হবে। তাই তার আগেই আর একটি আকুলা-২ নিউক্লিয়ার সাবমেরিন রাশিয়া থেকে নিয়ে আসার চুক্তি করল ভারত।  

আইএনএস চক্র ভারতীয় নৌবাহিনীর হাতে আসার আগে পারমাণবিক সাবমেরিন সংক্রান্ত কোন অভিজ্ঞতাই ভারতের ছিল না। রাশিয়ার কাছ থেকেই সে বিষয়ে প্রশিক্ষণ নিতে শুরু করে ভারতের নৌবাহিনী। তারপর থেকে গত চার বছরেরও বেশি সময় ধরে পারমাণবিক সাবমেরিন নিয়ে কাজ করতে করতে ভারতের নৌবাহিনী সে বিষয়ে অত্যন্ত পারদর্শী হয়ে উঠেছে। ভারত নিজেই আরও আধুনিক পরমাণু শক্তিচালিত সাবমেরিন তৈরি করে ফেলেছে। আইএনএস চক্র অর্থাৎ রাশিয়ার তৈরি আকুলা-২ শ্রেণির সাবমেরিন  হল পরমাণু শক্তিচালিত অ্যাটাক সাবমেরিন। আর ভারতের নিজের তৈরি আইএনএস অরিহন্ত হল পরমাণু শক্তিচালিত ব্যালিস্টিক মিসাইল সাবমেরিন। আইএনএস চক্র থেকে টর্পেডো হামলা চালানো যায়। ক্রুজ মিসাইলও ছোড়া যায়। কিন্তু আইএনএস অরিহন্ত থেকে ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র ছোড়া যায়।

বিডি প্রতিদিন/এ মজুমদার

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow