Bangladesh Pratidin

ঢাকা, সোমবার, ২১ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, সোমবার, ২১ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২০:৫৬ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ১২ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২২:১৫
বোমা ফাটার আতঙ্কে সরানো হচ্ছে ৭০ হাজার মানুষ!
অনলাইন ডেস্ক
বোমা ফাটার আতঙ্কে সরানো হচ্ছে ৭০ হাজার মানুষ!
সংগৃহীত ছবি

অক্সিজেন সিলিন্ডারের মতো দেখতে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময়ের একটি বোমা উদ্ধার করা হয়েছে গ্রিসের থেসালনিকি শহরে। তবে হিটলারের নাৎসি বাহিনীর ফেলা ওই বোমাটি বিস্ফোরিত হয়নি।

আর এজন্য বোমাটি নিষ্ক্রিয় করতে থেসালনিকি শহরের প্রায় ৭০ হাজার অধিবাসীকে ওই এলাকা থেকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে।

 
বিবিসি জানিয়েছে, গত সপ্তাহে রাস্তা সংস্কার করতে গিয়ে উদ্ধার হয় দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময়ের সবচেয়ে বড় বোমাগুলোর একটি। বোমাটি বিস্ফোরিত না হওয়ায় একে বিপদজনক হিসাবে চিহ্নিত করা হয়। আর এরপরেই স্থানীয় প্রশাসন বোমাটিকে নিষ্ক্রিয় করার সিদ্ধান্ত নেয়। আর তা করার জন্য আজ রবিবারকে বেছে নেওয়া হয়। এজন্য ওই এলাকা থেকে প্রায় ৭০ হাজার মানুষকে সরিয়ে নেওয়া হয়েছে ইতিমধ্যে। বোমাটিকে নিষ্ক্রিয় করতে গিয়ে যদি হঠাৎ বিস্ফোরণ ঘটে যায়, তাহলে আরও বিপদ হতে পারে। আর সেজন্যেই স্থানীয় মানুষকে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

উদ্ধার হওয়া বোমাটির ওজন প্রায় ২৫০ কেজি। বোমা বিস্ফোরণের স্থান থেকে বৃত্তাকারে ২ কিলোমিটার এলাকার অধিবাসীদের নিরাপদ দূরত্বে সরানো হয়। স্থানীয় সময় সকালের মধ্যেই অধিবাসীদের সরিয়ে নেওয়ার কাজ সম্পন্ন হয়েছে।

নিরাপত্তা প্রধান অ্যাপোসটোলস জিৎজিকোস্টাস সাংবাদিকদের জানান, লোকজনকে নিরাপদে সরিয়ে নেওয়া অপরিহার্য হয়ে পড়েছে। ওই এলাকায় এর আগে এতো বড় বোমা পাওয়া যায়নি বলে তিনি জানান। সেনাবাহিনীর পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, বোমাটির নিষ্ক্রিয়করণ সম্পন্ন করতে আট ঘণ্টা থেকে দুই দিন পর্যন্ত লেগে যেতে পারে। যে কোন ধরনের অপ্রীতিকর পরিস্থিতি মোকাবিলার জন্য ১ হাজার পুলিশ ও ৩০০ স্বেচ্ছাসেবককে নামানো হয়েছে ওই এলাকায়।

প্রসঙ্গত, এর আগে গত ডিসেম্বরে জার্মানির আউগসবুর্গ শহর থেকে ১ দশমিক ৮ টনের একটি বোমা উদ্ধার হয়। তখন শহরের অর্ধ-লক্ষাধিক বাসিন্দাকে সরিয়ে নেওয়া হয়। ধারণা করা হচ্ছে, ১৯৪৪ সালে বিমান হামলার সময় মিত্র বাহিনী জার্মানিতে এই বোমাটি ফেলেছিল। ওই বিমান হামলায় পুরো শহরটি ধ্বংস হয়ে যায়।

সূত্র: কলকাতা ২৪x৭ নিউজ

 

বিডি প্রতিদিন/১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৭/হিমেল

আপনার মন্তব্য

up-arrow