Bangladesh Pratidin

ঢাকা, রবিবার, ২০ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, রবিবার, ২০ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১৪:৪০ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ১৪:৪৭
শিশুদের ফ্ল্যাটে রেখে বাইরে মা, ওয়াশিং মেশিনে জড়িয়ে যমজ শিশুর মৃত্যু
অনলাইন ডেস্ক
শিশুদের ফ্ল্যাটে রেখে বাইরে মা, ওয়াশিং মেশিনে জড়িয়ে যমজ শিশুর মৃত্যু
প্রতীকী ছবি

ওয়াশিং মেশিনে পড়ে মৃত্যু হল ৩ বছরের যমজ শিশুর। দেহ উদ্ধারের সময় শিশু দুটির মাখা ওয়াশিং মেশিনের নীচের দিকে ছিল।

এর ফলেই যমজ শিশুর মৃত্যু হয়।

শনিবার বিকেলে ভারতের নয়া দিল্লির রোহিনী এলাকার অবান্তিকা হাউজিং কমপ্লেক্সে এ মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটে।

অ্যাপার্টমেন্টের নিচ তলার ফ্ল্যাটের বাথরুমের সামনে যমজ শিশু লক্ষ্য ও নিশুকে নিয়ে সাংসারিক কাজে ব্যস্ত ছিলেন মা রাখী। তিনি পুলিশকে জানিয়েছেন, বাথরুমের সামনে টপ লোডিং ওয়াশিং মেশিনে কাপড় কাচার জন্য নোংরা জামা-কাপড় তাতে দিয়েছিলেন। কিন্তু ওয়াশিং পাউডার শেষ হয়ে যাওয়াতে, ফ্ল্যাটের দরজা বন্ধ না করেই সামনের একটি দোকানে কিনতে বেরিয়ে ছিলেন। ঘরে তখন খেলছিল দুই শিশু। সেমি অটোমেটিক মডেলের ওই ওয়াশিং মেশিনটিতে তখন পানি ভর্তি করতে দিয়ে গিয়েছিলেন বলেই জানান তিনি।

মাত্র ৬ মিনিটের মধ্যে ফ্ল্যাটে ফিরে আসেন রাখী। কিন্তু বাচ্চাদের দেখতে না পেয়ে প্রতিবেশীদের বাড়িতে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করেন। কোথাও খুঁজে না পেয়ে স্বামী রবিন্দরকে ফোন করে বাড়ি আসতে বলেন। রোহিনীতে একটি বেসরকারি ইনসিওরেন্সে কোম্পানির ম্যানেজার পদে কাজ করেন তিনি। খবর পেয়ে ১০ মিনিটের মধ্যে বাড়ি ফিরে আসেন। রবিন্দর ও রাখীর একটি ১০ বছরের ছেলে আদিত্য সেই সময় স্কুলে ছিল। কোথাও তাদের খুঁজে না পেয়ে ১.১০ মিনিটে ফ্ল্যাটে ফিরে আসেন দম্পতি। চোখ পড়ে ওয়াশিং মেশিনের উপর। ১২-১৫ লিটার পানি ভর্তি মেশিনের ভিতর নিখোঁজ সন্তানদের উদ্ধার করেন তারা।

ওয়াশিং মেশিন থেকে সন্তানদেরকে তুলে একটি বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে গেলে, সেখানকার চিকিৎসকরা তাদেরকে মৃত বলে ঘোষণা করেন। পুলিশের অনুমান, খেলায় মত্ত যমজ শিশুরা কৌতূহলের ঝোঁকে, মেশিনের উপর ওঠে। পা পিছলে গিয়ে পড়ে যায়। পানির গভীরতা তেমন না থাকলেও, ৩ বছরের শিশুদের কাছে সেই পানি থেকে উঠে আসা সম্ভব ছিল না। কিন্তু প্রশ্ন উঠছে, একই সঙ্গে দুই শিশু কীভাবে মেশিনটির ভিতর ঢুকে গেল?

বিডি প্রতিদিন/সালাহ উদ্দীন

 

আপনার মন্তব্য

up-arrow