Bangladesh Pratidin

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : ২ মার্চ, ২০১৭ ০০:৫০ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ২ মার্চ, ২০১৭ ০৮:৩৪
সাইবেরিয়ায় বরফ গলে জেগে উঠেছে এক 'হারানো পৃথিবী'!
অনলাইন ডেস্ক
সাইবেরিয়ায় বরফ গলে জেগে উঠেছে এক 'হারানো পৃথিবী'!

সময়ের আবর্তনে জেগে উঠেছে হারিয়ে যাওয়া এক পৃথিবী। বহু হাজার বছর আগে চাপা পড়ে গিয়েছিল সে পৃথিবী।

তার উপর জমেছিল বরফের স্তর। কিন্তু বরফ গলতেই ধীরে ধীরে দেখা মিলছে এক অচেনা দুনিয়ার। সম্প্রতি বিজ্ঞানীদের মধ্যে সাড়া ফেলে সাইবেরিয়ায় জেগে উঠেছে এক মহাগহ্বর৷ স্থানীয় ইয়াকুতিয়ান জনগোষ্ঠির বিশ্বাস ‘বাটাগাইকা’ নামের মহাগহ্বরটি হচ্ছে পাতালে প্রবেশ করার রাস্তা৷ প্রায় এক কিলোমিটার চওড়া ও ২৮০ ফুট গভীর এই গহ্বরটি প্রতিবছর ৩৩ থেকে ৯৯ ফুট বাড়ছে৷ এর ফলে ভুগর্ভস্ত বরফ গলে বেরিয়ে আসছে প্রায় দু’লক্ষ বছর পুরনো প্রাণিজগতের নিদর্শন। ইতিমধ্যে, বাটাগাইকা গহ্বর থেকে পাওয়া গিয়েছে প্রাগৈতিহাসিক প্রায় অবিকৃত ম্যামথ ও চার হাজার বছর পুরনো ঘোড়ার জীবাশ্ম।

বৈজ্ঞানিকদের বিশ্বাস গ্লোবাল ওয়ার্মিংয়ের ফলে ভূগর্ভে বরফ গলে যাওয়ায় তৈরি হয়েছে এই বিশাল গহ্বর। তার ফলে প্রকাশ্যে এসেছে তুষার যুগে চাপা পড়ে যাওয়া বহু প্রাগৈতিহাসিক প্রাণীর জীবাশ্ম। তারা আরও জানিয়েছেন যে, শেষবার প্রায় ১০,০০০ বছর আগে, তুষার যুগের শেষে সইবেরিয়াতে এরকম মহগহ্বরের সৃষ্টি হয়েছিল। আবহাওয়া বদল ও উষ্ণায়নের  গবেষণায় ওই গহ্বর থেকে জরুরি তথ্য পাওয়া যাবে বলেও মনে করছেন তারা। তবে এ নিয়ে কিছুটা উদ্বেগও রয়েছে৷ সম্প্রতি রুশ বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন যে, এমন গহ্বর থেকে বহু বছর ধরে চাপা পড়ে থাকা স্মল পক্সের জীবাণু বেরিয়ে আসতে পারে। সূত্র: সংবাদ প্রতিদিন।

 বিডি প্রতিদিন/এ মজুমদার

আপনার মন্তব্য

up-arrow