Bangladesh Pratidin

ঢাকা, রবিবার, ২০ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, রবিবার, ২০ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : ৩ মার্চ, ২০১৭ ০৩:০০ অনলাইন ভার্সন
আপডেট :
'অসহিষ্ণুদের কোন জায়গা নেই ভারতে'
অনলাইন ডেস্ক
'অসহিষ্ণুদের কোন জায়গা নেই ভারতে'
ফাইল ছবি

ভারতের শিক্ষাঙ্গনে সংঘর্ষ নিয়ে এবার মুখ খুললেন দেশটির রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জি। ভারতের কেরালার কোচিতে ‘‌ইন্ডিয়া অ্যাট সেভেন্টি’‌ শীর্ষক অনুষ্ঠানে রামজস কলেজে সংঘর্ষের প্রসঙ্গ টেনে তিনি বলেন, ‘‌দেশে অসহিষ্ণু ভারতবাসীর কোনও জায়গা নেই।

’‌  

এ সময় তিনি বলেন, ‘‌বিশ্ববিদ্যালয়গুলির উচিত অসহিষ্ণুতা থেকে সরে এসে শিক্ষা এবং গবেষণামূলক বক্তব্যে গুরুত্ব দেওয়া। মত প্রকাশের স্বাধীনতা নাগরিকের মৌলিক অধিকারের মধ্যে পড়ে ঠিকই, কিন্তু সেই সঙ্গে খেয়াল রাখতে হবে সেই মৌলিক অধিকার যেন দেশের সার্বভৌমত্বে আঘাত না হানে। ’‌ 

জন প্রতিনিধিদেরও নিজেদের আচরণ সম্পর্কে সচেতন হওয়ার পরামর্শ দিয়ে রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জি আরও বলেন, ‘‌জনগণের কথা মাথায় রেখে কাজ করতে হবে। তাদের কথা আগে শুনতে হবে। মানুষ সব কিছু মুখ বুজে মেনে নেবে, এ রকম যেন না ভাবেন তারা। ’‌ 

দিল্লির রামজস কলেজ ছাত্র সংঘর্ষের ঘটনায় দেশদ্রোহী বিতর্ক নতুন করে মাথাচাড়া দিয়েছে। এই ইস্যুতে রং চড়িয়েছে কার্গিল শহিদ কন্যার ফেসবুক পোস্ট। গুরুমেহরকে নিয়ে রাজনৈতিক তরজা তুঙ্গে উঠেছে। তাতে জড়িয়ে পড়েছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীরাও। গুরমেহরকে নিয়ে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী কিরেন রিজিজুর একাধিক মন্তব্য সোশ্যাল মিডিয়ায় ঝড় তুলেছে। সেই বিতর্ক আরও একগুণ বাড়িয়েছেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি।  

বৃহস্পতিবার তিনি মন্তব্য করেন, ‘‌এক শ্রেণির মানুষ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে জাতীয়তাবাদকে বদনাম করার চেষ্টা করছে। ’‌ সেই মন্তব্যের প্রেক্ষিতেই রাষ্ট্রপতির এই সমালোচনা বলে মনে করা হচ্ছে।

 

বিডি-প্রতিদিন/ ৩ মার্চ, ২০১৭/ আব্দুল্লাহ সিফাত-৮

আপনার মন্তব্য

up-arrow