Bangladesh Pratidin

ঢাকা, সোমবার, ২১ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, সোমবার, ২১ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : ১১ মার্চ, ২০১৭ ২০:৪৯ অনলাইন ভার্সন
আপডেট :
'প্রযুক্তির অগ্রগতিতে পরমাণু বা জীবাণু যুদ্ধের আশঙ্কা তৈরি হচ্ছে'
অনলাইন ডেস্ক
'প্রযুক্তির অগ্রগতিতে পরমাণু বা জীবাণু যুদ্ধের আশঙ্কা তৈরি হচ্ছে'
ফাইল ছবি

পদার্থবিজ্ঞানী স্টিফেন হকিং বিশ্ব জুড়ে প্রযুক্তির অগ্রগতি নিয়ে হতাশা আর সংশয় প্রকাশ করে বলেছেন, প্রযুক্তির আজকের অগ্রগতি একটি পরমাণু অথবা জীবাণু যুদ্ধের আশঙ্কা তৈরি করেছে যা পৃথিবীর ধ্বংস ডেকে আনতে সক্ষম। তবে মানুষ এই চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা করতে সক্ষম হবে বলে মনে করছেন তিনি।

টাইম ম্যাগাজিনকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছেন, সভ্যতার সূচনালগ্ন থেকে মানুষ যখনই জীবনযাপনকে সহজ করার চেষ্টা করেছে, তখনই আগ্রাসনের সম্ভাবনা প্রবল হয়েছে। ’ ডারউউনের বিবর্তনবাদের ‘সারভাইবাল অব ফিটেস্ট’ ধারণার প্রতি অনুগত হকিন্স বলেন, প্রযুক্তির অগ্রগতি আজ এমন একটা পর্যায়ে এসে পৌঁছেছে যে একটা পরমাণু যুদ্ধ, কিংবা একটা জীবাণু যুদ্ধে এই সভ্যতা ধ্বংস হয়ে যেতে পারে।

ডারউইনের মতো করেই হকিন্স মনে করেন, অপেক্ষাকৃত ক্ষমতাশালী প্রজাতির দ্বারা দুর্বল প্রজাতির ধ্বংস হয়ে যাওয়াটাই বিবর্তনের মূল সূত্র। তিনিও পৃথিবীকে যোগ্যতরের স্থান বিবেচনা করেন। হকিন্স আশঙ্কা প্রকাশ করেন, এমন হতে পারে যে, পুরো বিশ্বকে একটা শক্তি নিজ সরকার ব্যবস্থার অধীনে নিয়ে আসার বন্দোবস্ত করতে পারে। ’ তা সত্ত্বেও আশাবাদী হকিন্স মনে করেন, মানুষ এইসব চ্যালেঞ্জ উৎরে যাবে। সূত্র: সংবাদ প্রতিদিন।

বিডি প্রতিদিন/এ মজুমদার

আপনার মন্তব্য

up-arrow