Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ১৭ জুলাই, ২০১৮ ০১:২১ অনলাইন ভার্সন
হাসপাতালে রোগীর অটোগ্রাফের আবদার মেটালেন মোদি!
দীপক দেবনাথ, কলকাতা:
হাসপাতালে রোগীর অটোগ্রাফের আবদার মেটালেন মোদি!

হাসপাতালে রোগীকে দেখতে এসে অটোগ্রাফের আবদার মেটালেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সোমবার দুপুরে পশ্চিমবঙ্গের পশ্চিম মেদিনীপুর জেলার কলেজ ময়দানে কৃষক সমাবেশে মোদির ভাষণ চলাকালীনই ভেঙে পড়ে লোহার কাঠামো দেওয়া মঞ্চের একাংশ। তাতেই পায়ে আঘাত পান রাজ্যটির বাঁকুড়া জেলার রানীবাগের বাসিন্দা দুই বোন রীতা মুদি ও অনিতা মুদি। 

বাবা-মা’র সাথেই মেদিনীপুরে মোদির সভায় এসেছিলেন ওই দুই বোন। আহত হওয়ার পর তাদের ভর্তি করানো হয় মেদিনীপুর মেডিকেল হাসপাতালে। সভা শেষে হাসপাতালে আহতদের দেখতে যান নরেন্দ্র মোদি। সেখানেই এই দুই বোনের দ্রুত আরোগ্য কামনার পাশাপাশি তাদেরকে সাহসের সাথে যে কোন অবস্থার মোকাবিলা করার পরামর্শ দেন প্রধানমন্ত্রী। সেই সাথে বড় বোন রীতার অটোগ্রাফের আবদারও মেটান মোদি। 

রীতা জানান, ‘প্রধানমন্ত্রী যখন আমাকে দেখতে আসেন তখন আমার জ্ঞান ছিল না, ফলে আমি কথাও বলতে পারিনি। কেবলমাত্র আমার হাতটা স্পর্শ করে বললেন একটু শক্ত করে থাকুন, ধীরে ধীরে সবকিছু ঠিক হয়ে যাবে’। রীতা আরও জানায়, 'পরে আমি তাঁর কাছে একটা অটোগ্রাফ চেয়েছিলাম'। এরপর প্রধানমন্ত্রীও একটি কাগজে রীতার নাম ও মোদির নিজের নাম স্বাক্ষর করে দেন। 

আহত হয় রীতার বোন অনিতাও। তিনি জানান ‘আমিও তখন সম্পূর্ণ অচেতন ছিলাম। উনি আমাকে বললেন অনেক শক্ত হয়ে থাকো। ভয় কোরো না। এরপর আমার মাথা স্পর্শ করে উনি চলে যান’। 

শুধু দুই বোনই নয়, মঞ্চ ভেঙে আহত হয়েছেন রীতার বাবা-মাসহ প্রায় বিশজনের মতো দর্শক। ঘটনার পর তাদের প্রত্যেকেই মেদিনীপুর মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। 


বিডি প্রতিদিন/হিমেল

আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর
up-arrow