Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ১৬:৩৭ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ১৬:৫৭
পাকিস্তানে কাশ্মীরের বিদ্রোহী নেতা বুরহানের নামে ডাকটিকিট
অনলাইন ডেস্ক
পাকিস্তানে কাশ্মীরের বিদ্রোহী নেতা বুরহানের নামে ডাকটিকিট
সংগৃহীত ছবি

বুরহান ওয়ানি। ভারত নিয়ন্ত্রিত জম্মু কাশ্মীরের হিজবুল মুজাহিদিনের একজন বিদ্রোহী নেতা ছিলেন। ২০১৬ সালের ৮ জুলাই দক্ষিণ কাশ্মীরের অনন্তনাগে ভারতীয় সেনা কর্তৃক গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা যান বুরহান। এবার ওই নেতার নামে ডাকটিকিট প্রকাশ করেছে পাকিস্তান। যেখানে লেখা রয়েছে, বুরহান ওয়ানি (১৯৯৪-২০১৬), স্বাধীনতার আদর্শ।

পাকিস্তানের ডাক বিভাগ কর্তৃক প্রকাশিত ডাকটিকিটটিতে বুরহানের মরদেহ নিয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শনের ছবি রয়েছে। পাকিস্তানি মুদ্রায় ৮ রুপিতে বিক্রয় হচ্ছে এটা। এছাড়াও তাকেসহ কাশ্মীরের বিভিন্ন ঘটনা নিয়ে মোট ২০টি ডাকটিকিট প্রকাশ করেছে তারা ।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া এর খবর অনুযায়ী, গত ২৪ জুলাই কাশ্মীর দিবস উপলক্ষে করাচির পাক ডাক বিভাগের সদর দফতর থেকে ওই ডাকটিকিট প্রকাশ করা হয়। বিভিন্ন অনলাইন সংস্থায় পাওয়া যাচ্ছে সেগুলো। পাকিস্তানি মুদ্রায় ২০টি ডাকটিকিটের দাম পড়ছে মোট ৫০০ টাকা। এতে উঠে এসেছে কাশ্মীরে চলমান ঘটনাচিত্র। টিকিটের নিচে লেখা রয়েছে, কাশ্মীরে ভারতীয় নিপীড়ন। ডাকটিকিটের ছবিতে কোথাও রয়েছে পুলিশের লাঠিচার্জ, কোথাও মরদেহের ছবি। এছাড়াও ডাকটিকিটের কোথাও কোথাও গণকবরের ছবি দেখা হয়েছে, কোথাও রাসায়নিক হামলার দাবি করে মৃতদেহের ছবি দেয়া হয়েছে।

ভারতীয় গণমাধ্যমের অভিযোগ, এসব ডাকটিকিট প্রকাশে পাকিস্তান সন্ত্রাসী ও উগ্রবাদীদের 'শহীদ' বলে  উসকে দিচ্ছে।

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালের ৮ জুলাই ভারত নিয়ন্ত্রিত দক্ষিণ কাশ্মীরের অনন্তনাগে ভারতীয় সেনা কর্তৃক গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা যায় হিজবুল মুজাহিদিন নেতা বুরহান ওয়ানি। সে সময় দলটির আরও দুই শীর্ষ নেতা নিহত হয়। বুরহান ওয়ানির মৃত্যুতে পরপর কাশ্মীরে বিদ্রোহ ছড়িয়ে পড়ে। সাধারণ মানুষ রাস্তায় নেমে আসে। বুরহান হত্যায় তৎকালীন পাক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ, সেনাপ্রধান বাজওয়া খোলাখুলি বুরহানের প্রশংসা করে বিবৃতি দেন। বুরহানকে কাশ্মীরের একজন ক্যারিসম্যাটিক লিডার বলে আখ্যা দিয়েছিল পাকিস্তান সরকার।

বিডি-প্রতিদিন/ ই-জাহান

আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর
up-arrow