Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ১২ ডিসেম্বর, ২০১৮ ১৩:০৭ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ১২ ডিসেম্বর, ২০১৮ ১৩:৪২
রাজ্যসভা নির্বাচনে বিজেপির ভরাডুবি, এগিয়ে কংগ্রেস
অনলাইন ডেস্ক
রাজ্যসভা নির্বাচনে বিজেপির ভরাডুবি, এগিয়ে কংগ্রেস

ভারতের পাঁচ রাজ্যের বিধানসভা নির্বাচনে ক্ষমতাসীন দল ভারতীয় জনতা পার্টিকে (বিজেপি) ছাপিয়ে অন্তত তিনটিতে এগিয়ে গেছে বিরোধীদল কংগ্রেস পার্টি। কংগ্রেসের সভাপতি পদে আসিন হওয়ার ঠিক এক বছর পূর্ণ হওয়ার দিনেই রাহুল গান্ধীর এ বিজয় পেয়েছেন। কংগ্রেস পার্টির কাছে এই হারের পাশাপাশি কোনো রাজ্যেই সংখ্যাগরিষ্ঠতা না পাওয়ায় এই ফলাফলকে দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বিজেপির ভরাডুবি হিসেবেই দেখছে দেশটির গণমাধ্যমগুলো।

এদিকে, মঙ্গলবার রাতে হার মেনে টুইটারে কংগ্রেসকে অভিনন্দন জানিয়েছেন মোদি। 

রাজস্থান ও ছত্তিসগড়ে কংগ্রেস সংখ্যাগরিষ্ঠতা লাভ করে সরকার গঠনের পথে রয়েছে। মধ্যপ্রদেশের ফলও সেপথেই যাচ্ছে।

তেলেঙ্গানার নির্বাচনে অবশ্য দুই দলই চন্দ্রশেখর রাওয়ের তেলেঙ্গানা রাষ্ট্র সমিতির কাছে উড়ে গেছে।

 এ রাজ্যগুলোর তুলনায় মিজোরামের চিত্র অবশ্য একেবারেই ভিন্ন। কেন্দ্রে বিজেপি’র মিত্র মিজো ন্যাশনাল ফ্রন্ট (এমএনএফ)এখানে কংগ্রেসকে প্রায় নিশ্চিহ্ন করে দিয়েছে।

লোকসভা নির্বাচনের কয়েক মাস আগে গুরুত্বপূর্ণ এ রাজ্যগুলোতে এমন বাজে ফল বিজেপির জন্য অশনি সংকেত, বলছেন পর্যবেক্ষকরা।

যদিও এই ফলাফলের একদিন আগেও  বিজেপি সভাপতি অমিত শাহ বলছিলেন, সব রাজ্যেই জিতবে বিজেপি। সকালে সংসদে গেলেও ভোটের ফল স্পষ্ট হওয়ার পর তাকে আর দেখা যায়নি। রাতে টুইট করে তেলেঙ্গানায় জয়ের জন্য চন্দ্রশেখর রাওকে ধন্যবাদ জানালেও তিন রাজ্যের হার নিয়ে কিছু বলেননি তিনি। 

আর টুইট করে মোদি বলেন, নির্বাচনে হারজিত থাকবেই। তিন রাজ্যে বিজয়ের জন্য কংগ্রেসকে অভিনন্দন জানালেন এবং সেই সঙ্গে নিজেদের এমন দুর্দিনেও কংগ্রেসকে তেলেঙ্গানা ও মিজোরামে তাদের ব্যর্থতার কথাও মনে করিয়ে দিলেন মোদি। 

এ ব্যাপারে রাহুল বলেন, ‘লড়াই চলবে, কিন্তু কাউকে দেশ থেকে মুছে ফেলা আমাদের লক্ষ্য নয়।’ 

তিন রাজ্যের বিদায়ী মুখ্যমন্ত্রীকেও তাদের কাজের জন্য ধন্যবাদ জানান রাহুল গান্ধী।

বিডি প্রতিদিন/এনায়েত করিম

আপনার মন্তব্য

up-arrow