Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ১৭ জানুয়ারি, ২০১৯ ১১:৪০ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ১৭ জানুয়ারি, ২০১৯ ১৫:৩৭
২০ ঘণ্টার চেষ্টায় জঙ্গিমুক্ত হলো নাইরোবির হোটেল, নিহত ১৪
অনলাইন ডেস্ক
২০ ঘণ্টার চেষ্টায় জঙ্গিমুক্ত হলো নাইরোবির হোটেল, নিহত ১৪

দীর্ঘ ২০ ঘণ্টার লড়াইয়ের পরে অবশেষে জঙ্গিমুক্ত হলো নাইরোবির ওয়েস্টল্যান্ড জেলার অভিজাত হোটেল 'ডুসিট ডি টু'। এ হামলায় প্রাণ গিয়েছে ১৪ জনের। তবে নিরাপত্তাবাহিনী প্রায় ৭০০ জনকে উদ্ধার করতে পেরেছে বলে জানিয়েছেন কেনিয়ার প্রেসিডেন্ট উহুরু কেনিয়াট্টা। নিহতদের মধ্যে এক জন মার্কিন নাগরিক ও এক ব্রিটিশ নাগরিকও রয়েছেন।

এদিকে, হামলার দায় নিয়েছে আল-কায়দার সঙ্গে জড়িত সোমালিয়ার জঙ্গি গোষ্ঠী আল-শাবাব। 

কেনিয়ার পুলিশের শীর্ষ কর্তা জোসেফ বোয়নেট জানান, মঙ্গলবার বিকেল ৩টা নাগাদ হোটেলের পার্কিং এলাকায় ঢুকে পড়ে জঙ্গিরা। একজন আত্মঘাতী জঙ্গি প্রথমে বিস্ফোরণ ঘটায়। তারপরেই হোটেলে ঢুকে এলোপাথাড়ি গুলি চালাতে শুরু করে বাকিরা। তবে জঙ্গিরা সংখ্যায় ক'জন ছিল, তা নিয়ে এখনও নিশ্চিত নয় পুলিশ। প্রথমে হোটেলের নিরাপত্তারক্ষীদের সঙ্গেই জঙ্গিদের গুলির লড়াই শুরু হয়। পরে দেশটির নিরাপত্তা বাহিনীও ঘটনস্থালে আসে। চলতে থাকে গুলি বিনিময়। পুরো ঘটনায় হোটেলে উপস্থিত আবাসিক ও কর্মীদের মধ্যে ব্যাপক আতঙ্কের সৃষ্টি হয়। 

পুলিশের এক শীর্ষ কর্মকর্তা জানান, মঙ্গলবার বিকেলের সিসিটিভি ফুটেজে দেখা গিয়েছে, চার জন সশস্ত্র ব্যক্তি কালো পোশাক পরে হোটেলে ঢুকছে। এদের একজন আত্মঘাতী হামলা চালায়। দু’জন বুধবার সকালে নিরাপত্তাবাহিনীর গুলিতে নিহত হয়েছে। নিহত দুই জঙ্গির কাছ থেকে একে-৪৭ রাইফেল উদ্ধার করা হয়েছে। 

বেলা সাড়ে ৩টা নাগাদ প্রথম দফায় উদ্ধার করা হয় কয়েক জনকে। বাইরে তখন রুদ্ধশ্বাস অপেক্ষায় ভিতরে আটকে পড়া মানুষদের আপনজনেরা। অবশেষে বুধবার পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয় নিরাপত্তাবাহিনী। কেনিয়ার বাহিনীকে সাহায্য করতে এগিয়ে আসে নাইরোবিতে অবস্থিত বেশ কয়েকটি দূতাবাসের সশস্ত্র নিরাপত্তারক্ষীরাও। আনন্দবাজার।

বিডি প্রতিদিন/এ মজুমদার

আপনার মন্তব্য

up-arrow