Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ২০ জানুয়ারি, ২০১৯ ২১:৪৮ অনলাইন ভার্সন
বিরোধীদের মহাজোট নেতিবাচক ও নড়বড়ে: মোদি
দীপক দেবনাথ, কলকাতা
বিরোধীদের মহাজোট নেতিবাচক ও নড়বড়ে: মোদি

কেন্দ্র থেকে বিজেপি সরকারের উৎখাত করতে বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলোর ‘মহাজোট’-কে কটাক্ষ করলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তাঁর অভিমত এই মহাজোট একটা দুর্নীতিবাজ, নেতিবাচক এবং নড়বড়ে জোট-এরা মানুষকে ভুল বোঝাচ্ছে। 

রবিবার দিল্লি থেকে গোয়া ও মহারাষ্ট্রের একাধিক লোকসভা কেন্দ্রে বিজেপির বুথস্তরের কর্মীদের উদ্দেশ্যে ভিডিও বার্তায় মোদি বলেন, ‘মহাজোট হল একটা অদ্ভুত বন্ধন। এটা হল নাম করা মানুষ, স্বজনপোষণ, দুর্নীতিবাজ ও কলঙ্কিত, নেতিবাচক, নড়বড়ে ও বৈষম্যের জোট।’ 

বিরোধীদের মহাজোট প্রসঙ্গে মোদির মন্তব্য ‘ওরা বিভিন্ন দল নিয়ে জোট করেছে, আর আমাদের জোট রয়েছে দেশের ১৩০ কোটি মানুষের সাথে। আমরা মানুষের স্বপ্ন ও আকাঙ্ক্ষাকে বাস্তবায়িত করতে প্রতিজ্ঞাবদ্ধ, আর ওরা নিজেদের ছেলে-মেয়েদেরকে নিয়ে প্রচারের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। তাদের কাছে অর্থ-ক্ষমতা রয়েছে, কিন্তু আামদের কাছে জনশক্তি রয়েছে। তারা তাদের পরিবারকে বাঁচাতে ব্যস্ত, কিন্তু আমরা দেশকে বাঁচাতে কাজ করে যাচ্ছি।’ 

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জিকেও কটাক্ষ করেন মোদি। তাঁর অভিযোগ, ‘বিগত পঞ্চায়েত নির্বাচনে রাজ্য জুড়ে সহিংসতার পিছনে যে তৃণমূল কংগ্রেসের প্রত্যক্ষ মদদ ছিল তারাই এখন দেশের গণতন্ত্র বাঁচানোর কথা বলছে। এটা খুবই আশ্চর্যের ঘটনা, যে দলগুলোর নিজেদের মধ্যে গণতন্ত্রের বিন্দুমাত্র লেশ নেই, তারাই এখন জোট গঠন করছে এবং মানুষকে দেশের গণতন্ত্র সম্পর্কে বোঝাচ্ছে।’  

কলকাতার ব্রিগেড জনসভায় উপস্থিত লোকতান্ত্রিক জনতা দল নেতা শরদ যাদবের মুখ ফসকে বলা ‘বোফর্স’ মন্তব্যকে কটাক্ষ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘কলকাতার সমাবেশ থেকে বিরোধী নেতারা দেশ ও গণতন্ত্র বাঁচানোর কথা বলছিলেন। ওই মঞ্চ থেকেই এক নেতা আমাদের বোফর্স কেলেঙ্কারির (রাফাল যুদ্ধ বিমান কেলেঙ্কারির কথা বলতে গিয়ে কংগ্রেস আমলে ঘটা বোফর্স নাম উচ্চারণ করে ফেলেন) ঘটনা মনে করিয়ে দেন।’  

উল্লেখ্য, মমতা ব্যানার্জির ডাকে সাড়া দিয়ে শনিবার কলকাতার প্যারেড ময়দানে ‘ঐক্যবদ্ধ ভারত’ সমাবেশে হাজির ছিলেন প্রায় ২৩টি অ-বিজেপি দলের নেতারা। 

বিডি-প্রতিদিন/২০ জানুয়ারি, ২০১৯/মাহবুব

আপনার মন্তব্য

up-arrow