Bangladesh Pratidin

ঢাকা, মঙ্গলবার, ৬ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : সোমবার, ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২২:৫৭
ইসরায়েলের ২০০ পরমাণু অস্ত্র ইরানের দিকে তাক করা
কলিন পাওয়েলের মেইল ফাঁস, মন্তব্য নেই যুক্তরাষ্ট্রের

ইসরায়েলের কাছে কমপক্ষে ২০০টি পারমাণবিক অস্ত্র আছে। আর এর সবগুলোই ইরানের দিকে তাক করা। মার্কিন সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী কলিন পাওয়েলের ইমেইলে এ তথ্য ছিল। সেই ইমেইল অ্যাকাউন্টটি হ্যাক হওয়ার পর এ তথ্য জানা গেছে। সম্প্রতি পরিচয় প্রকাশ না করা একদল হ্যাকার কলিন পাওয়েলের জিমেইল অ্যাকাউন্ট হ্যাক করে। তথ্য ফাঁসকারী ওয়েবসাইট ডিসিলিংক হ্যাক হওয়া ওই অ্যাকাউন্টের মূল্যবান কিছু মেইল গত বৃহস্পতিবার প্রকাশ করেছে। কলিন পাওয়েলের মুখপাত্র পেগি  সিফরিনো মেইলগুলো আসল বলে নিশ্চিত করেন।  ইসরায়েলের পারমাণবিক অস্ত্র থাকার বিষয়টি জানিয়ে জেফারি লিডসকে ইমেইল পাঠিয়েছিলেন কলিন পাওয়েল। জেফারি একই সঙ্গে পাওয়েলের ব্যবসার সহযোগী এবং ডেমোক্রেটিক দলের তহবিলের অন্যতম জোগানদার। ২০১৫ সালের ৩ মার্চ লেখা কলিন পাওয়েলের ইমেইলে বলা হয়েছে, ‘যা হোক, ইরানিরা একটি (পারমাণবিক বোমা) তৈরি করলেও ব্যবহার করতে পারবে না। তেহরান জানে ইসরায়েলের কাছে ২০০টি পারমাণবিক বোমা আছে, যেগুলো তেহরানের দিকেই তাক করা এবং আমাদের আছে কয়েক হাজার। ইরানের প্রেসিডেন্ট (মাহমুদ আহমাদিনেজাদ) যেমন বলেছেন, একটি দিয়ে কী করব, ঘষামাজা করব।’ কলিন পাওয়েলের ইমেইল পাঠানোর কয়েকদিন আগেই ওয়াশিংটন সফর করেন ইসরায়েলের প্রেসিডেন্ট বেনিয়ামিন নেতানিয়াহু। ওই সময় তিনি প্রস্তাবিত যুক্তরাষ্ট্র-ইরান পারমাণবিক চুক্তির বিরোধিতা করে বক্তব্য দেন। ‘নিউক্লিয়ার অ্যাম্বিগুইটি’ নামক নীতির কারণে অন্যতম মিত্র ইসরায়েলের পারমাণবিক অস্ত্র থাকার বিষয়টি নিশ্চিত না করা অথবা অস্বীকার করার বিষয়টি সাবধানের চালিয়ে যাচ্ছিল যুক্তরাষ্ট্র। তবে সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রীর ইমেইলে বিষয়টি নিয়ে আর কোনো লুকোছাপা থাকল না। তবে কলিন পাওয়েলের ইমেইল এবং ইসরায়েলের পারমাণবিক অস্ত্র বিষয়ে এখনো নিশ্চুপ যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। পারমাণবিক অস্ত্র নিয়ে পরীক্ষার জন্য ইরান ও উত্তর কোরিয়াকে নিষেধাজ্ঞার মুখে পড়তে হয়েছে। একই ভাগ্য ইসরায়েলকে বরণ করতে হবে কি না, এমন প্রশ্নেরও উত্তর দেননি জন কারবি।  কলিন পাওয়েল   ২০০৩ সালে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিসেবে ইরাকের ওপর মার্কিন অভিযানেও গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেন। এএফপি

up-arrow