Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ৫ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ১৪:৩৮ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ০৯:৫৪
অ্যাপেনডিক্স অপারেশনের নামে স্ত্রীর কিডনি বিক্রি স্বামীর
অনলাইন ডেস্ক
অ্যাপেনডিক্স অপারেশনের নামে স্ত্রীর কিডনি বিক্রি স্বামীর
রীতা সরকার

স্ত্রীর অ্যাপেনডিক্স অপারেশনের নামে কিডনি বিক্রির অভিযোগ উঠল স্বামী, এবং শ্বশুরবাড়ির বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের মুর্শিদাবাদের ফরাক্কায়। 

রীতা সরকার নামে সেই গৃহবধূ তিন মাস আগে শিলিগুড়িতে এক আত্মীয়ের বাড়ি গিয়ে অসুস্থ হয়ে পড়লে শিলিগুড়ি মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি হন। তখনই আল্ট্রাসোনোগ্রাফিতে ধরা পড়ে তার ডান কিডনিটি নেই। 

এরপরই রীতা অভিযোগ করেন, বছর দুয়েক আগে কলকাতার একটি নার্সিংহোমে তাকে অ্যাপেনডিক্স অপারেশনের নাম করে ভর্তি করেন তার স্বামী বিশ্বজিত সরকার। সেসময়ই টাকার লোভে তার কিডনিটি বিক্রি করে দিয়েছে বিশ্বজিত।

২০০৫ সালে ফরাক্কার মেয়ে রীতার বিয়ে হয়েছিল লালগোলার বাসিন্দা বিশ্বজিতের। সেসময় বরপণ হিসেবে ১,৮০,০০০ টাকা, ৬ ভরি সোনা এবং অন্যান্য সামগ্রী নিয়েছিল শ্বশুরবাড়ি। বিয়ের পর থেকেই আরও টাকার দাবিতে তাঁর উপর অত্যাচার চালাত স্বামী, শাশুড়ি, ননদ, দেওর। 

গত বছর শ্বশুর মারা যাওয়ার পর অত্যাচারের মাত্রা বাড়ে। ৬ মাস আগে তিনি ফারাক্কায় বাপেরবাড়ি চলে যান। ফারাক্কা থানায় অভিযোগ দায়ের হয়েছে। তদন্তে লালগোলায় রীতার শ্বশুরবাড়ি গেলে পুলিশ দেখে বিশ্বজিত পলাতক।  


বিডি-প্রতিদিন/ আব্দুল্লাহ সিফাত তাফসীর‌

আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর
up-arrow