Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ১০ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ১১:২৪ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ১০ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ১৫:১০
ভারত 'বনধ'র প্রভাব পড়েনি কলকাতায়
অনলাইন ডেস্ক
ভারত 'বনধ'র প্রভাব পড়েনি কলকাতায়
bd-pratidin

পেট্রল, ডিজেল, রান্নার গ্যাসসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের আকাশছোঁয়া মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে ভারতজুড়ে ভারত 'বনধ'-এর ডাক দিয়েছে জাতীয় কংগ্রেস, বাম দলসহ আরেও কয়েকটি রাজনৈতিক দল। তবে বিরোধীদের ডাকা এই বন্ধে তেমন কোনো প্রভাব পড়েনি কলকাতায়।

প্রতিদিনের ন্যায় সোমবার সকাল থেকেই রাস্তায় যান চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে। মানুষ চলাচল করছে অবাধে। বড় কোনো অপ্রীতিকর ঘটনার খবরও মেলেনি। তবে শিয়ালদহের বেশ কয়েকটি জায়গায় রেল চলাচলে বাধা দেওয়া হয়েছে।

অন্যদিনের মত শিয়ালদহ, ধর্মতলা, যাদবপুরে সড়ক পথে যান চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে। শিয়ালদহে দূরপাল্লার ট্রেনগুলোর অধিকাংশই সময়মতো এসেছে।  

এদিকে, বনধে দুর্গাপুর শিল্পাঞ্চল কোনও প্রভাবই পড়েনি। সকাল থেকে রেল চলাচল স্বাভাবিক থাকলেও, মায়াবাজার রেল গেটের কাছে কয়েক মিনিটের জন্য ডাউন অগ্নিবীণা এক্সপ্রেসকে আটকে দেন বনধ সমর্থকরা। 

তবে রেল পুলিশের হস্তক্ষেপে দ্রুত গন্তব্যে রওনা হয় অগ্নিবীণা এক্সপ্রেস। বনধে আসানসোল শিল্পাঞ্চলে জনজীবন স্বাভাবিক। যানবাহন সংখ্যায় কম চললেও সকাল থেকে সরকারি ও বেসরকারি বাস চলাচল স্বাভাবিক। ট্রেন চলাচলেও কোনও প্রভাব পড়েনি। কারখানায় উপস্থিতির হার অন্য দিনের মতই। দোকান বাজার খুলেছে। স্কুল কলেজেও উপস্থিতি উল্লেখযোগ্য।

প্রসঙ্গত, পেট্রল, ডিজেল, রান্নার গ্যাসসহ নিত্যপ্রয়োজনীয় পণ্যের মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে ভারতজুড়ে ভারত 'বনধ'-এর ডাক দেয় জাতীয় কংগ্রেস, বাম দলসহ আরেও কয়েকটি রাজনৈতিক দল।

বিডি প্রতিদিন/১০ সেপ্টেম্বর ২০১৮/আরাফাত

আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর
up-arrow