Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ১৮:১০

কলকাতার নতুন পুলিশ কমিশনার অনুজ শর্মা

দীপক দেবনাথ, কলকাতা:

কলকাতার নতুন পুলিশ কমিশনার অনুজ শর্মা

অবশেষে কলকাতার পুলিশ কমিশনার পদ থেকে সরে গেলেন বিতর্কিত পুলিশ কর্মকর্তা রাজীব কুমার। তাঁর জায়গায় এলেন অনুজ শর্মা। ১৯৯১ সালের ব্যাচের এই ‘ইন্ডিয়ান পুলিশ সার্ভিস’ (আইপিএস) কর্মকর্তা ২০১৫ সালে পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য পুলিশের আইজি (আইনশৃঙ্খলা) থেকে এডিজি পদ মর্যাদায় উত্তীর্ণ হন। গত বছরে দার্জিলিং-এ গোর্খা আন্দোলনের সময়ও অত্যন্ত দক্ষতার সাথে সেখানকার আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি সামাল দেন। মঙ্গলবার রাজ্য সরকারের পক্ষে এক নির্দেশিকা জারি করে এই বদলির বিষয়টি জানানো হয়েছে।

অন্যদিকে দক্ষ পুলিশ কর্মকর্তা হিসাবে পরিচিত রাজীব কুমারকে রাজ্য পুলিশের গোয়েন্দা সংস্থা (সিআইডি)-এর এডিজি পদে স্থানান্তরিত করা হয়েছে।

নির্বাচন কমিশনের নিয়ম অনুযায়ী কোন একটি জায়গায় একটানা তিন বছর কাজ করা যায় না। সেই নিয়ম মেনেই রাজ্য পুলিশের শীর্ষ স্তরে এই বদল বলে জানা গেছে। যদিও রাজীব কুমারের এই সরে যাওয়া নিয়ে বিভিন্ন মহলে জল্পনা ছড়িয়েছে।

উল্লেখ্য, মমতা ঘনিষ্ঠ পুলিশ কর্মকর্তা রাজীব কুমারকে কেন্দ্র করে গত কয়েক বছর ধরেই বিতর্ক অব্যাহত। বিধাননগর পুলিশ কমিশনারেটের কমিশনার পদে থাকার সময়েই সারদা সহ অন্য চিটফান্ড কেলেঙ্কারির মামলায় বিশেষ তদন্তকারী দলের প্রধান ছিলেন রাজীব কুমার। ২০১৬ সালের ফেব্রুয়ারী মাসে তাকে কলকাতার পুলিশ কমিশনারের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল। ওই বছরের মাঝামাঝি সময়ে রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচনের আগে তাকে সরিয়ে দেওয়া হলেও নির্বাচন পর্ব মিটে যাওয়ার পর ফের তাকে আগের পদে বহাল করে দেওয়া হয়। বিষয়টি নিয়ে সেসময় যথেষ্ট বিতর্ক হয়।

কেবল তাই নয় চিটফান্ড মামলায় তদন্তের সময় রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে তথ্য প্রমাণ লোপাটেরও অভিযোগ ওঠে। যার প্রেক্ষিতে কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা সিবিআই তাকে হাজিরা দিতে বলেও বারবার তিনি এড়িয়ে যান। এরপরই অতি সম্প্রতি রাজীব কুমারের কলকাতার বাড়িতে সিবিআই’এর পৌঁছে যাওয়া এবং তা নিয়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির ধরনায় বসার ঘটনা নিয়ে রাজ্য রাজনীতি তোলপাড় হয়ে ওঠে। পরে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে তদন্তে সহযোগিতা করতে শিলং-এ গিয়ে সিবিআই-এর মুখোমুখি হওয়ার পর থেকেই তাঁর ভবিষ্যত নিয়ে নানা জল্পনা শুরু হয়েছিল। অবশেষে এই পদ পরিবর্তনের ফলে সেই জল্পনায় পানি পড়ল বলেই মনে করছে বিশেষজ্ঞ মহল।  

বিডি প্রতিদিন/হিমেল


আপনার মন্তব্য