Bangladesh Pratidin

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : শুক্রবার, ১৭ জুন, ২০১৬ ০০:০০ টা আপডেট : ১৬ জুন, ২০১৬ ২৩:৫৪
অপহরণের এক বছর পর বিএনপি নেতার হাড়গোড় উদ্ধার
কুষ্টিয়া প্রতিনিধি

কুমারখালীতে অপহরণের এক বছর পর বিএনপি নেতা ও ইটভাটা ব্যবসায়ী মিরাজুল ইসলাম মিরাজের হাড়গোড় উদ্ধার করেছে পুলিশ। গত বুধবার রাতে উপজেলার মাস-উদ রুমী সেতুসংলগ্ন গড়াই নদের চরে বালুর নিচ থেকে এসব হাড় উদ্ধার করা হয়।

কুমারখালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জিয়াউর রহমান জানান, গ্রেফতার আসামি সলেমান আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দিতে ‘মিরাজকে হত্যা করে বালুচাপা দেওয়া হয়েছিল’ বলে স্বীকারোক্তি দেয়। সে অনুযায়ী ওই আসামিকে নিয়ে বুধবার রাত ৯টায় মিরাজের ইটভাটা সংলগ্ন গড়াই নদের পাশে বালুচরে অভিযান চালানো হয়। ওই আসামি ‘মিরাজকে হত্যা করে যেখানে পুঁতে রাখা হয়’ সেই স্থানটি পুলিশকে দেখিয়ে দেয়। এ সময় গর্ত খুঁড়ে ৩০টি হাড় পাওয়া য়ায়। এ সময় সেখানে মিরাজের পরিবারের কয়েকজন সদস্যকেও উপস্থিত করা হয়েছিল। গতকাল সকালে হাড়গুলো ময়নাতদন্তের জন্য কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়। তবে এসব হাড় নিখোঁজ মিরাজের কিনা- তা নিশ্চিত হওয়ার জন্যও ল্যাবে পরীক্ষা করতে হবে। ডিএনএ পরীক্ষা করলেই সব জানা যাবে। প্রসঙ্গত, মিরাজুল ইসলাম কুমারখালী উপজেলার লাহিনীপাড়া এলাকার মৃত আবদুল গণির ছেলে। তিনি একই উপজেলার চাপড়া ইউনিয়ন বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। গত বছরের ৪ জুন রাত ১০টার দিকে কুমারখালী উপজেলার জয়নাবাদ এলাকা থেকে মিরাজ নিখোঁজ হন। ৫ জুন মিরাজের স্ত্রী সখী খাতুন কুমারখালী থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করেন। পরে ৬ জুন দুপুরে তিনি অজ্ঞাত কয়েকজনকে আসামি করে একটি অপহরণ মামলা করেন। এরপর পুলিশ কয়েক দফায় চেষ্টা চালিয়েও মিরাজের খোঁজ পায়নি।




up-arrow