Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৭ জুলাই, ২০১৭

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৭ জুলাই, ২০১৭
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১৯ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৮ জুলাই, ২০১৬ ২৩:৩২
ছয় পুরোহিতকে হত্যার হুমকি দিয়ে চিঠি
প্রতিদিন ডেস্ক

রংপুর, পিরোজপুর, পটুয়াখালী ও নোয়াখালীর বিভিন্ন মন্দিরের ছয় পুরোহিত-সেবায়েতকে হত্যার হুমকি দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। রবিবার রাত ও গতকাল চিঠি পাঠিয়ে এবং সরাসরি এ হুমকি দেওয়া হয়। নিজস্ব প্রতিবেদক ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর—

রংপুর : নগরীর কলেজ রোডে আনন্দময়ী সেবা আশ্রমের পুরোহিত বিজয় চক্রবর্তীকে হত্যার হুমকি দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। ঘটনার পর নিজের নিরাপত্তা চেয়ে গতকাল দুপুরে তিনি কোতোয়ালি থানায় সাধারণ ডায়েরি করেছেন। আশ্রমের সেবায়েত ঝর্ণা রানী জানান, সোমবার সকালে আশ্রমের দরজা খুলে মেঝেতে হলুদ খাম দেখতে পাই। বিষয়টি মুঠোফোনে পুরোহিতকে জানালে তিনি এসে খামটি খুলেন। তার ভিতরে সাদা কাগজে লেখা, ‘বিজেত পুরোহিত কুড়ি হাজার টাকা রাখিস। তা না হলে তোর সময় শেষ’। পিরোজপুর : শহরের কেন্দ্রীয় কালীমন্দির ও পালপাড়া দুর্গা-কালীমন্দিরের পুরোহিতকে হত্যার হুমকি দেওয়া হয়েছে। রবিবার রাতে ও গতকাল সকালে মন্দিরে হুমকি সংক্রান্ত চিঠি আসে। দুর্গা-কালীমন্দিরের সভাপতি নরেন্দ্র নাথ জানান, রাতে পুরোহিত রুহিদাস মন্দিরে ঢুকে চিঠি পড়ে থাকতে দেখেন। চিঠিতে তাকে হত্যার হুমকি দেওয়া হয়েছে। বিষয়টি সকালে জেলা প্রশাসককে জানানো হয়। কেন্দ্রীয় কালীমন্দিরের পুরোহিত সলিল মুখার্জী জানান, সোমবার সকালে মন্দিরে এলে ভিতরে চিঠি দেখতে পাই। খুলে দেখি তাতে আমাকে জীবননাশের হুমকি দেওয়া হয়েছে। সদর থানার ওসি জানান, বিষয়টি আমাদের নজরদারিতে আছে। পটুয়াখালী : বাউফল পৌরসভার দেশবন্ধু বিশ্বকল্যাণ গীতাশ্রমের সেবায়েত পরিতোষ সাহাকে গতকাল হত্যার হুমকি দিয়েছে এক দুর্বৃত্ত। মন্দিরে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। বাউফল থানার ওসি জানান, ঘটনার সময় পরিতোষ মন্দিরে ধোয়ামোছার কাজ করছিলেন। এ সময় রেইন কোর্ট পরা এক যুবক তাকে ডেকে— খেয়েদেয়ে রেডি হও তোমার দিন শেষ বলেই স্থান ত্যাগ করে। নোয়াখালী : নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে দুটি মন্দিরের পুরোহিতকে জবাই করে হত্যার হুমকি দেওয়া হয়েছে। মন্দিরে ফেলে যাওয়া চিরকুটে এই হুমকির কথা উল্লেখ করা হয়। তবে চিরকুটটিতে প্রেরকের নাম পরিচয় উল্লেখ করা হয়নি। এ নিয়ে হিন্দুদের মধ্যে আতঙ্ক বিরাজ করছে। এ ব্যাপারে থানায় সাধারণ ডায়েরি করা হয়েছে। অতিরিক্তি পুলিশ সুপার এ কে এম জহিরুল ইসলাম জানান, ব্যক্তিগত কোনো শত্রুতা-বিদ্বেষবশত বা সত্যিকার অর্থে কাউকে টার্গেট করে এ হুমকি দেওয়া হয়েছে কিনা বিষয়টি খতিয়ে দেখছে পুলিশ। এ ঘটনার পর ওই এলাকায় পুলিশের টহল জোরদার করেছে।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow