Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৭ জুলাই, ২০১৭

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৭ জুলাই, ২০১৭
প্রকাশ : বুধবার, ২০ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৯ জুলাই, ২০১৬ ২৩:২৪
দেশে জনসংখ্যা বেড়ে ১৬ কোটি ১০ লাখ
নিজস্ব প্রতিবেদক

বাংলাদেশের জনসংখ্যা এখন ১৬১ মিলিয়ন বা ১৬ কোটি ১০ লাখ। আর জনসংখ্যা বৃদ্ধি রোধে নানা কর্মসূচি গ্রহণের পরও রাজধানী ঢাকায় জনসংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে। ‘বিশ্ব জনসংখ্যা দিবস-২০১৬’ উদযাপন উপলক্ষে গতকাল সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্য প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালিক এ কথা বলেন। তিনি বলেন, দেশের মোট জনসংখ্যা সার্বক্ষণিক পরিবর্তনশীল। আমরা এতদিন ১৬০ মিলিয়নের (১৬ কোটি) যে ফিগারটি ব্যবহার করেছি এখন তার থেকে জনসংখ্যা একটু বেশি, যা ১৬ কোটি ১০ লাখ। তিনি জানান, দেশে জনসংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে না। বৃদ্ধির হার স্থির আছে, কিছুটা হয়তো বাড়ছে। জনসংখ্যা বৃদ্ধির হার এক সময় ৬ দশমিক ৩ ছিল। এখন ২ দশমিক ৩। চট্টগ্রাম ও সিলেটে জনসংখ্যা বৃদ্ধির হার একটু বেশি। এই দুই এলাকার জনসংখ্যা বৃদ্ধি রোধের ওপর জোর দেওয়া হয়েছে। তিনি জানান, বিভিন্ন উদ্যোগগুলোর মধ্যে বিজিএমইএ’র ক্লিনিকগুলোতে পরিকল্পনা সামগ্রী সহজলভ্য করা, চার কোটি কিশোর-কিশোরীদের শিক্ষিত করা, দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলে পরিবার কল্যাণকর্মী নিয়োগসহ আরও উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে। এ ছাড়া প্রতিবছর ১১ জুলাই বিশ্ব জনসংখ্যা দিবস পালিত হলেও ঈদের ছুটির কারণে ২১ জুলাই এ দিবসটি পালন করা হবে। এবার দিবসটির প্রতিপাদ্য, ‘কিশোরীদের জন্য বিনিয়োগ, আগামী প্রজন্মের সুরক্ষা’।

পরিবার পরিকল্পনা অধিদফতরের মহাপরিচালক মোহাম্মদ ওয়াহিদ হোসেন জানান, ঢাকা আমাদের জন্য খুব এলার্মিং জায়গা। এ বছর সাতটি বিভাগের মধ্যে ৬টি বিভাগে ২০১১ সালের তুলনায় ২০১৪ সালে জনসংখ্যা বৃদ্ধির হার কমেছে। একমাত্র ঢাকায় খানিকটা বেড়েছে। ঢাকার সামান্য পরিবর্তন পুরো জনসংখ্যার ফিগারকে অনেক বেশি প্রভাবিত করে। তবে ঢাকা বলতে শুধু ঢাকা শহর বোঝায় না। ঢাকা বিভাগে অনেক দুর্গম এলাকা আছে। এ এলাকাগুলো টার্গেট করে নতুন কর্মসূচি নিচ্ছি। আশা করছি ২০১৭ সালের জরিপে এটার কিছু প্রতিফলন ঘটবে।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow