Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শুক্রবার, ২০ অক্টোবর, ২০১৭

ঢাকা, শুক্রবার, ২০ অক্টোবর, ২০১৭
প্রকাশ : শুক্রবার, ২২ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ২১ জুলাই, ২০১৬ ২৩:৪১
কৃষি সংবাদ
দুবলিয়ায় পান চাষ করে স্বাবলম্বী ৩২ পরিবার
দিনাজপুর প্রতিনিধি
দুবলিয়ায় পান চাষ করে স্বাবলম্বী ৩২ পরিবার

দিনাজপুরের খানসামা উপজেলার দুবলিয়া গ্রাম। এখানে পান চাষ করে স্বচ্ছল জীবন-যাপন করছেন ৩২টি পরিবার।

বাপ-দাদার আমল থেকে তারা পান চাষ করছেন। ভবিষ্যতেও গড়ে তুলেছেন এই চাষকে কেন্দ্র করেই। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, পান বরজকে আশির্বাদ মনে করেন এ গ্রামের চাষিরা। তারা এই চাষ থেকে নিজেদের চাহিদাই শুধু মেটাচ্ছেন না, বিক্রি করে ভালো আয় করছেন। খানসামা ছাড়াও অন্যান্য উপজেলার শতাধিক হাট-বাজারের পান দোকানে এ পান বিক্রি করা হয়। দেখা গেছে, বাঁশের কঞ্চি ও খড় দিয়ে ঘেরা আর উপরের ছাউনি দিয়ে তৈরি- দেখতে বাড়ির মতো এসব পানের বরজ উপজেলার একমাত্র গোয়ালডিহি ইউনিয়নের দুবলিয়া গ্রামেই রয়েছে। পান চাষিরা জানান, এখানকার সব পরিবার এক সময় ব্যবসা আর শখের বসে শতাধিক পানের বরজে পান চাষ শুরু করেন। গ্রাম কিংবা শহরে অতিথি আপ্যায়নে এই পানের চাহিদা রয়েছে। চুন ছাড়া পান পাতার রস আর কাঁচা সুপারির রস হার্টের উপকারিতা ছাড়াও ছাঁচি পানের রস দিয়ে যৌনরোগের ওষুধ তৈরি করে চিকিৎসা ক্ষেত্রে গ্রামের কবিরাজরাও বেশ নাম করছেন। দুবলিয়ার পান চাষি ধীরেন্দ্র নাথ রায়, ললিত চন্দ্র, অনন্ত চন্দ্র, অধিকারী, প্রফুল্ল রায়, ভবেশ রায় ও ধরণী রায় জানান, ‘আমরা আগে স্বল্প খরচে সার, খৈল, মাটি ও মজুরি দিয়ে পান উৎপাদন করছিলাম। কিন্তু এখন দাম বেড়ে গেছে। এ চাষে এক বছরে একর প্রতি খরচ দাঁড়িয়েছে ৩০ হাজার টাকা। আর বিক্রয় মূল্য পাওয়া যায় ৩২-৩৭ হাজার টাকা। আমরা ৩২ জন পান চাষি প্রায় ৯ একর জমিতে রোপণকৃত ভারতীয়, হাইব্রিড, দেশি এবং ওষধি ছাঁচি জাতের পানের বরজ থেকে পান উৎপাদন করি। ’

 

এই পাতার আরো খবর
up-arrow