Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বুধবার, ৭ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০২:৪৯
রাজধানীতে ভাড়ার কথা বলে বাসায় ঢুকে হত্যা
নিজস্ব প্রতিবেদক

বাসা ভাড়া নেওয়ার কথা বলে দুই পুরুষ ব্যক্তি ওয়াহিদা আক্তার (৪৮) নামে এক নারীকে কুপিয়ে হত্যা করেছে। গতকাল সন্ধ্যা ৬টার দিকে রাজধানীর দক্ষিণখান এলাকার দাওয়াইর দক্ষিণপাড়ার একটি বাসায় ঢুকে এ ঘটনা ঘটানো হয়।

জানা গেছে, অস্ত্রাঘাতে আহত ওয়াহিদাকে উদ্ধার করে প্রথমে স্থানীয় কুর্মিটোলা হাসপাতালে এবং পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে (ঢামেকে) পাঠানো হয়। সেখানে রাত সাড়ে ১০টার দিকে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। ওয়াহিদার গলায় সোনার চেইন ও হাতে বালা থাকলেও তা পাওয়া যায়নি। ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ উপ-পরিদর্শক (এসআই) বাচ্চু মিয়া জানান, ময়নাতদন্তের জন্য লাশ ঢামেক মর্গে রাখা হয়েছে এবং সংশ্লিষ্ট থানায় জানানো হয়েছে।  ওয়াহিদা আক্তারের দেবর ইলিয়াস মজুমদার জানিয়েছেন, ওয়াহিদা নিজেদের ছয়তলা বাসার তিনতলায় থাকতেন। ওই বাসার ছয়তলায় কেউ বাস করত না। সন্ধ্যার দিকে দুজন অপরিচিত পুরুষ ব্যক্তি বাসা ভাড়া নেওয়ার উদ্দেশে আসে। ওয়াহিদা তাদের ছয়তলায় রুম দেখাতে নিয়ে যান। মেয়ে শোভা তখন বাসায় ছিল। এর কিছুক্ষণ পর শোভা তার মায়ের চিৎকার শুনতে পেয়ে উপরে গিয়ে দেখে, মা রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে আছেন। তখন শোভার চিৎকারে ওয়াহিদার দেবর ইলিয়াস ও আশপাশের লোকজন ছুটে আসেন।

জানা গেছে, ওয়াহিদার স্বামী কাতার প্রবাসী সোহরাব হোসেন ৩ দিন আগে দেশে ফেরেন। তিনি গতকাল কুমিল্লায় গ্রামের বাড়িতে ছোট ছেলেকে নিয়ে তার বাবার কবর জিয়ারত করতে যান। এ সময় সোহরাব হোসেনের স্ত্রী ও মেয়ে বাসায় ছিলেন।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow