Bangladesh Pratidin

ঢাকা, রবিবার, ৪ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : শনিবার, ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২৩:৪৫
বখাটের উৎপাতে কিশোরীর আত্মহত্যা
মাগুরা প্রতিনিধি

মাগুরা সদর উপজেলার সাংদা লক্ষ্মীপুর গ্রামের সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী হ্যাপি (১৩)-কে দুই বখাটে নিয়মিত উত্ত্যক্ত করায় ক্ষোভে-দুঃখে গলায়  ফাঁস লাগিয়ে বৃহস্পতিবার রাতে  আত্মহত্যা করেছে।

পুলিশ ও পারিবারিক সূত্র জানায়, বখাটে মুরাদ ও সাব্বির প্রায়ই হ্যাপিকে কুপ্রস্তাব দিয়ে উত্ত্যক্ত করত। এ নিয়ে বখাটে যুবকদের অভিভাবকদের সঙ্গে কয়েক দফা দেনদরবার করেও কোনো সমাধান হয়নি। বৃহস্পতিবারেও বখাটে দুই যুবক হ্যাপিকে কুপ্রস্তাব দিয়ে নানাভাবে উত্ত্যক্ত করে। এতে অসহ্য হয়ে লোকলজ্জায় ও ক্ষোভে-দুঃখে হ্যাপী বৃহস্পতিবার রাতে নিজ বাড়ির পাশে আম গাছের ডালে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করে। এ ঘটনা জানাজানি হয়ে গেলে মুরাদ ও সাব্বির গা-ঢাকা দিয়েছে। বখাটে  সাব্বির (১৫) সদর উপজেলার গজদুর্বা গ্রামের গিয়াসউদ্দিনের ছেলে এবং মুরাদ (১৪) পার্শ্ববর্তী শালিখা উপজেলার ছানি আড়পাড়া গ্রামের জাহিদুলের ছেলে। হ্যাপির লাশ ময়নাতদন্ত শেষে নিজ গ্রামে দাফন করা হয়। সাংদা লক্ষ্মীপুর পুলিশ ক্যাম্প ইনচার্জ এস আই রেজাউল ইসলাম ও হ্যাপির ভাই মো. মনিরুজ্জামান উত্ত্যক্ত করা ও আত্মহত্যার ঘটনা নিশ্চিত করেছেন। সদর থানার এস আই মিলন জানান, এ ঘটনায়  হ্যাপির মা শাহনাজ বেগম বাদী হয়ে দুই বখাটে যুবকের বিরুদ্ধে মাগুরা সদর থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow