Bangladesh Pratidin

ঢাকা, রবিবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১১ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১০ অক্টোবর, ২০১৬ ২৩:৪১
দেবী দুর্গা আজ ফিরবেন কৈলাসে
প্রিন্স বিশ্বাস
দেবী দুর্গা আজ ফিরবেন কৈলাসে

শারদীয় দুর্গোৎসবের পঞ্চম দিন আজ। শুভ বিজয়া দশমী।

কৃপারূপে মর্ত্যে অবতারিণী দেবী দুর্গা আজ ফিরে যাবেন কৈলাসে। এজন্য প্রতিটি পূজামণ্ডপ আর ভক্তের অন্তরে বাজছে বিষাদের সুর। ঢাক-কাঁসরের বাদ্য-বাজনা, আরতি ও পূজারি ভক্তদের পূজা-অর্চনায় কেবলই মা দুর্গার বিদায়ের আয়োজন। অশ্রুসিক্ত চোখে ভক্তরা দেবীর প্রতিমা বিসর্জন দেবেন। আর এরই মাধ্যমে শেষ হবে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় এ ধর্মীয় আয়োজন। বিজয়া দশমী উপলক্ষে বাংলাদেশে আজ সাধারণ ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে। শারদীয় দুর্গোৎসব উপলক্ষে আজ বেলা ১১টা থেকে ১২টা পর্যন্ত বঙ্গভবনে  রাষ্ট্রপতি অ্যাডভোকেট আবদুল হামিদ হিন্দু সম্প্রদায়ের বিশিষ্টজনদের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করবেন। এ ছাড়া রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ উপলক্ষে বাণীতে হিন্দু সম্প্রদায়ের সদস্যদের আন্তরিক শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। বিজয়া দশমীর শুভেচ্ছা জানিয়েছেন জাতীয় সংসদে বিরোধী দলের নেতা রওশন এরশাদ, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াসহ রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ। গতকাল ছিল শারদীয় দুর্গোৎসবের মহানবমী। নবমীর প্রধান আকর্ষণ ছিল সন্ধ্যায় মণ্ডপে মণ্ডপে আরতি প্রতিযোগিতা। ভক্তরা মেতে ওঠেন আরতি নিবেদনে। সেই সঙ্গে চলে পুরোহিতের চণ্ডীপাঠ ও যজ্ঞানুষ্ঠান। যথারীতি মায়ের চরণে পুষ্পাঞ্জলি, প্রসাদ বিতরণ, ভোগারতি ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। গতকালও রাজধানীর ঢাকেশ্বরী, শাঁখারীবাজার, গুলশান, বনানী, বসুন্ধরার পূজামণ্ডপে ছিল ভক্তদের উপচে পড়া ভিড়। বনানী খেলার মাঠে দিনাজপুরের কান্তজিউ মন্দিরের আদলে টেরাকোটায় তৈরি এ পূজামণ্ডপ ভক্তদের বিশেষ দৃষ্টি কাড়ে। মণ্ডপে সন্ধ্যা ৭টায় শুরু হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এতে হিন্দু রীতি তুলে ধরে ফ্যাশন শোয় অংশ নেন নাট্যশিল্পী তিশা। তারপর বিপ্লব সাহা ও কোনাল সংগীত পরিবেশন করেন। সাদিয়া ইসলাম মৌয়ের নৃত্য পরিবেশনার মধ্য দিয়ে শেষ হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

আজকের আয়োজন : আজ সকাল ৭টা ৩২ মিনিটের মধ্যে দশমী বিহিত পূজা ও দর্পণ বিসর্জন দেওয়া হবে। তারপর হিন্দু সম্প্রদায়ের বিবাহিত নারীরা মাকে সিঁদুর পরিয়ে বিদায় জানাবেন। এ সময় মন্দিরে মন্দিরে সিঁদুর খেলায় মেতে উঠবেন গৃহিণীরা। এরপর সারা দেশে স্থানীয় আয়োজন ও সুবিধামতো সময়ে বিজয়া শোভাযাত্রাসহ প্রতিমা বিসর্জন দেওয়া হবে। প্রতিমা বিসর্জন শেষে ভক্তরা শান্তিজল গ্রহণ করবেন। মঙ্গলবার মহালয়ার মধ্য দিয়ে মর্ত্যলোকে আগমন করেন মহাদেবী দুর্গা। পঞ্জিকামতে, দেবী এবার ঘোটকে চড়ে এসেছিলেন পিত্রালয়ে এবং ফিরেও যাচ্ছেন ঘোটকে চড়ে। এবার রাজধানীতে ২২৯টিসহ সারা দেশে ২৯ হাজার ৩৯৫টি স্থায়ী-অস্থায়ী মণ্ডপে দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। রাজধানীতে প্রতিমা বিসর্জনের উদ্দেশ্যে ঢাকেশ্বরী মন্দির মেলাঙ্গন থেকে বিকাল সাড়ে ৩টায় বিজয়া শোভাযাত্রা বের করা হবে।

সম্মিলিত বাদ্য-বাজনা, মন্ত্র উচ্চারণ ও পূজা-অর্চনার মধ্য দিয়ে শুরু হবে এ শোভাযাত্রা। রাজধানীর বিভিন্ন এলাকা থেকে ভক্তরা প্রতিমা বিসর্জনে অংশ নেবেন। বিজয়া শোভাযাত্রা শেষে রাজধানীর বুড়িগঙ্গা নদী, টঙ্গীর তুরাগ নদসহ নিকটবর্তী জলাশয় কিংবা পুকুরে প্রতিমা বিসর্জন দেওয়া হবে।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow