Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : শুক্রবার, ১৪ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৩ অক্টোবর, ২০১৬ ২৩:২১
আলো ছড়াচ্ছে হোসনা হোসাইন টেকনিক্যাল
গোলাম রাব্বানী
আলো ছড়াচ্ছে হোসনা হোসাইন টেকনিক্যাল

অজপাড়াগাঁয়ে তথ্যপ্রযুক্তির আলো ছড়াচ্ছে হোসনা-হোসাইন টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউট।

নোয়াখালীর সেনবাগ উপজেলার নিভৃত পল্লীতে এই প্রতিষ্ঠান গড়ে তুলেছেন প্রবাসী এক দম্পতি।

পিছিয়ে পড়া ছাত্রছাত্রীদের বিশ্বমানের শিক্ষা দিতে কামরুল-জান্নাতুল কল্যাণ ট্রাস্টের অধীনে ২০১৩ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় এই ইনস্টিটিউট। মাত্র ৯০ জন নিয়ে প্রতিষ্ঠানটির যাত্রা শুরু হলেও বর্তমানে শিক্ষার্থীর সংখ্যা ৩৫০। জেনারেল মেকানিক, জেনারেল ইলেকট্রিক, সিভিল কনস্ট্রাকশন এবং কম্পিউটার ও তথ্যপ্রযুক্তি বিষয়ে শিক্ষা দেওয়া হচ্ছে। কারিগরি শিক্ষা বোর্ড অনুমোদিত এই প্রতিষ্ঠান থেকে প্রতিবছর ভালো ফল করছে অসচ্ছল-গরিব মেধাবী শিক্ষার্থীরা। এ ছাড়া ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত সাধারণ শিক্ষাও চালু রয়েছে এখানে। তবে গরিব মেধাবী, এতিমদের জন্য শতভাগ বিনামূল্যে শিক্ষা গ্রহণের সুযোগও রয়েছে এ প্রতিষ্ঠানে। প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান কামরুল ইসলাম বলেন, ‘আমার কষ্টার্জিত টাকা দিয়ে গড়ে তুলেছি হোসনা-হোসাইন টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউট। প্রবাস জীবনে অনেক কষ্ট করে এই প্রতিষ্ঠানের জন্য অর্থ সংগ্রহ করেছি। আমার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে প্রতিদিন প্রথম বিক্রির টাকা দীর্ঘ ১৯ বছর সঞ্চয় করেছি। পরে সেই টাকা দিয়ে আমার স্ত্রী জান্নাতুল ফেরদৌসসহ দুজনে মিলে গড়ে তুলেছি এই টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউট। আমার লক্ষ্য হচ্ছে বিশ্বমানের দক্ষ ও সুশিক্ষিত মানবসম্পদ তৈরি করা। আমার মা-বাবার নামে এর নামকরণ করেছি হোসনা-হোসাইন টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউট। ’ প্রতিষ্ঠানটির প্রধান বিলকিছ আরা বলেন, নোয়াখালীর সেনবাগ উপজেলা থেকে ১২ কিলোমিটার দক্ষিণে সর্বশেষ ৯ নম্বর নবীপুর ইউনিয়নের গোপালপুর গ্রামে অবস্থিত এই প্রতিষ্ঠান। অজপাড়াগাঁয়ের শিক্ষার্থীরা এই প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে তথ্যপ্রযুক্তির জ্ঞান পাচ্ছে। এখানে রয়েছে অত্যাধুনিক কম্পিউটার ল্যাব। কৃতী শিক্ষার্থী সংবর্ধনা : হোসনা-হোসাইন টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউটের উদ্যোগে মঙ্গলবার অভিভাবক সমাবেশ ও কৃতী শিক্ষার্থী সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন সেনবাগ উপজেলা নির্বাহী অফিসার শারমিন আলম। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার নাজিম উদ্দিন। এতে বক্তব্য দেন পিপল এন টেকের প্রতিষ্ঠাতা ও সিইও ইঞ্জিনিয়ার আবু বকর হানিফ, আমেরিকা থেকে প্রকাশিত বাংলা পত্রিকা ঠিকানার সম্পাদক লাবলু আনসার, নবীপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বেলায়েত হোসেন সোহেল প্রমুখ। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান কামরুল ইসলাম। এতে ট্রাস্টি বোর্ডের সদস্যসহ অভিভাবক ও শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন। উপজেলার প্রত্যন্ত এলাকার এ প্রতিষ্ঠান থেকে গরিব মেধাবী শিক্ষার্থীরা সাধারণ শিক্ষার পাশাপাশি কারিগরি শিক্ষা গ্রহণ করে দক্ষ জনশক্তি হিসেবে গড়ে উঠবে বলে আশা প্রকাশ করেন বক্তারা।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow