Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : বুধবার, ১৯ অক্টোবর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ১৮ অক্টোবর, ২০১৬ ২৩:১৯
১০ টাকার চালে অনিয়ম
বাতিল ৪৪ ডিলার মামলা দায়ের
নিজস্ব প্রতিবেদক

খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম জানিয়েছেন, খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির আওতায় কেজিপ্রতি ১০ টাকা দামের চাল বিতরণে অনিয়মের অভিযোগে ইতিমধ্যে ৪৪ জনের ডিলারশিপ বাতিল করা হয়েছে। একই সঙ্গে অনিয়মের অভিযোগে দায়ের করা ১১টি মামলায় ছয়জনকে গ্রেফতার করা  হয়েছে।

যে কোনো মূল্যে এই কর্মসূচির দলীয়করণও ঠেকানো হবে। খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির চাল নিয়ে নানা অনিয়মের অভিযোগ ওঠার পর গতকাল সচিবালয়ে খাদ্য মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনে মন্ত্রী এসব তথ্য জানান। এ সময় মন্ত্রী অনিয়মের সচিত্র সংবাদ গণমাধ্যমে প্রকাশ করায় সাংবাদিকদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান। খাদ্যমন্ত্রী বলেন, ‘খাদ্যবান্ধব’ কর্মসূচি চালুর পর থেকে বিভিন্ন অনিয়ম ধরা পড়েছে। আমরা ব্যবস্থা গ্রহণ করেছি, করছি এবং আরও করব। দুর্নীতিবাজ ডিলাররা যে দলেরই হোক না কেন তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। অনিয়মে জড়িত কাউকেই ছাড় দেওয়া হবে না। তিনি বলেন, হতদরিদ্র হতদরিদ্রই, তাকে সাহায্য করার জন্যই এই কর্মসূচি চালু করা হয়েছে। প্রসঙ্গত, ‘খাদ্যবান্ধব’ কর্মসূচির আওতায় দেশের ৫০ লাখ পরিবারকে ১০ টাকা কেজিতে চাল বিতরণ করছে সরকার। এ কর্মসূচির আওতায় সেপ্টেম্বর থেকে নভেম্বর এবং মার্চ ও এপ্রিল এই পাঁচ মাস ১০ টাকা কেজি দরে মাসে ৩০ কেজি করে চাল কিনতে পারবেন দরিদ্র পরিবারের সদস্যরা। নারী, বিধবা ও প্রতিবন্ধী নারীপ্রধান পরিবারকেই এ কর্মসূচিতে প্রাধান্য দেওয়া হবে। গত ৭ সেপ্টেম্বর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কুড়িগ্রামে এ কর্মসূচির উদ্বোধন করেন। কিন্তু কর্মসূচি চালু হওয়ার পর ১০ টাকা কেজি দরের এই চাল কালোবাজারি করা থেকে শুরু করে বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগ ওঠে। এ নিয়ে অনিয়মের খবর সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশ হলে খাদ্য মন্ত্রণালয় থেকে ৯ অক্টোবর আট বিভাগের জন্য আটটি তদন্ত দল গঠন করা হয়।

up-arrow