Bangladesh Pratidin

ঢাকা, সোমবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৭

ঢাকা, সোমবার, ১১ ডিসেম্বর, ২০১৭
প্রকাশ : বুধবার, ১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০ টা আপলোড : ১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:১৩
এবার বিআরটিএ কার্যালয়ে দুদক টিম
নিজস্ব প্রতিবেদক

রাজধানীতে অবস্থিত বাংলাদেশ রোড ট্রান্সপোর্ট অথরিটির (বিআরটিএ) কার্যালয়ে দুর্নীতির উৎস খুঁজতে অভিযান চালিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। গতকাল দুদক পরিচালক খন্দকার এনায়েত রশীদের নেতৃত্বে চার সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল এ অভিযান চালায়। বেলা সাড়ে ১১টায় এ অভিযান শুরু হয়ে শেষ হয় আড়াইটায়। এ ছাড়া কুমিল্লায় অন্য অভিযানে সাবেক দুই ইউপি সদস্যসহ চারজনকে গ্রেফতার করেছে দুদক। বিষয়টি বাংলাদেশ প্রতিদিনকে নিশ্চিত করেছেন দুদকের উপ-পরিচালক (গণমাধ্যম) প্রণব কুমার ভট্টাচার্য্য। অভিযান শেষে দুদক পরিচালক সাংবাদিকদের বলেন, ‘বিআরটিএ-প্রধানের কাছে আমরা দুর্নীতি-সংক্রান্ত তথ্যের সহযোগিতা চেয়েছি। আমরা এ সংস্থার আর্থিক অনিয়মসহ নানা ধরনের অসঙ্গতি প্রতিরোধে কাজ করব। ’

কুমিল্লায় গ্রেফতার ৪ : ভুয়া প্রকল্প দেখিয়ে কুমিল্লার ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলার দুলালপুর ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের সাবেক সদস্য হাফেজ আহমেদ ও ৮ নম্বর ওয়ার্ডের সাবেক সদস্য জসিম উদ্দিনকে ১ লাখ টাকা আত্মসাতের অভিযোগে গ্রেফতার করেছে দুদক। এ ছাড়া জাল দলিলের মাধ্যমে সরকারি খাস ১০ শতক জমি বিক্রি করে প্রাপ্ত টাকা আত্মসাতের অভিযোগে দুজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এরা হলেন জেলার দেবীদ্বার উপজেলার আবদুল বারী ও আবদুস সামাদ। গ্রেফতারের পর চারজনকে সংশ্লিষ্ট থানায় হস্তান্তর করা হয়।

এর আগে ১৮ জানুয়ারি সরকারি ১৫ প্রতিষ্ঠানের প্রাতিষ্ঠানিক দুর্নীতি রোধে ১৫টি প্রাতিষ্ঠানিক বিশেষ টিম গঠন করে দুদক। রবিবার থেকে কার্যকারিতায় এ অভিযান পরিচালিত হয়।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow