Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, শুক্রবার, ১৮ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : বুধবার, ৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০ টা আপলোড : ৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০
একনেকে দুই হাজার কোটি টাকার ৮ প্রকল্প অনুমোদন
নিজস্ব প্রতিবেদক

ব্রিজ নির্মাণ, বিমানবন্দর উন্নয়ন, আইটি ট্রেনিং সেন্টার স্থাপনসহ আটটি উন্নয়ন প্রকল্পের অনুমোদন দিয়েছে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি (একনেক)। এসব প্রকল্প বাস্তবায়নে ব্যয় হবে ২ হাজার ৭১ কোটি ৮০ লাখ টাকা।

গতকাল শেরেবাংলানগরে এনইসি সম্মেলনকক্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে একনেক সভায় এ অনুমোদন দেওয়া হয়। একনেকে অনুমোদিত প্রকল্পগুলো হচ্ছে : সিলেট ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের বিদ্যমান রানওয়ে ও টেক্সিওয়ের শক্তি বৃদ্ধিকরণ প্রকল্প। এতে ব্যয় ধরা হয়েছে ৪৫১ কোটি ৯৮ লাখ টাকা। গুরুত্বপূর্ণ আঞ্চলিক মহাসড়ক প্রশস্ততকণ প্রকল্পে ব্যয় ধরা হয়েছে ৩৯৫ কোটি ৪৯ লাখ টাকা। পটুয়াখালী-কুয়াকাটা সড়কে শেখ কামাল সেতু, শেখ জামাল সেতু ও শেখ রাসেল সেতু নির্মাণ প্রকল্পে ব্যয় ধরা হয়েছে ১৮২ কোটি ১৫ লাখ টাকা। নিরালা এভিনিউ ও খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় এভিনিউর দুটি সংযোগ সড়ক নির্মাণ প্রকল্পে ব্যয় ধরা হয়েছে ১২৮ কোটি ৫৪ লাখ টাকা। সভা শেষে পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল জানান, সভায় অনুমোদন দেওয়া চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় উন্নয়ন প্রকল্পে ব্যয় হবে ৩২০ কোটি টাকা। এ ছাড়া যমুনা নদীর ডান তীরের ভাঙন রোধ ও গাইবান্ধা সদর উপজেলা এবং গণকবরসহ ফুলছড়ি উপজেলার বিভিন্ন স্থাপনা রক্ষা প্রকল্পে ব্যয় ধরা হয়েছে ২৭৫ কোটি ৯৮ লাখ টাকা। বরিশাল বিসিক শিল্পনগরীর অনুন্নত এলাকা উন্নয়ন এবং এলাকার অবকাঠামো পুনর্নির্মাণ প্রকল্পে ব্যয় ধরা হয়েছে ৫২ কোটি ২০ লাখ টাকা। ঢাকায় শেখ কামাল আইটি ট্রেনিং অ্যান্ড এনকিউবেশন সেন্টার নির্মাণে ব্যয় ধরা হয়েছে ২৬৫ কোটি ৪৬ লাখ টাকা। পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, এসব উন্নয়ন প্রকল্প বাস্তবায়ন হলে দেশের যোগাযোগব্যবস্থা যেমন আরও উন্নত হবে, তেমনি বিভিন্ন খাতের জনবলের দক্ষতা বাড়ানোয় সহায়কা ভূমিকা রাখবে। জানুয়ারিতে মূল্যস্ফীতি বেড়েছে : এদিকে মূল্যস্ফীতি কমার প্রবণতায় গত বছর শেষ হলেও জানুয়ারিতে তা আবার বেড়েছে। গত মাসে পয়েন্ট টু পয়েন্ট ভিত্তিতে সাধারণ মূল্যস্ফীতি হয়েছে ৫ দশমিক ১৫ শতাংশ, যা আগের মাসে ছিল ৫ দশমিক ০৩ শতাংশ। অর্থাৎ ২০১৬ সালের জানুয়ারিতে যে পণ্য বা সেবার জন্য ১০০ টাকা খরচ করতে হতো, ২০১৭ সালের জানুয়ারিতে সে পণ্য বা সেবার জন্য ১০৫ টাকা ১৫ পয়সা খরচ করতে হয়েছে। মূল্যস্ফীতি বাড়ার পেছনে মোটা চালের দাম বৃদ্ধি ও শিক্ষা ব্যয়কে কারণ হিসেবে দেখিয়েছেন পরিকল্পনামন্ত্রী মুস্তফা কামাল। গতকাল একনেক সভা-পরবর্তী সংবাদ সম্মেলনে বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) হালনাগাদ তথ্য সাংবাদিকদের সামনে তুলে ধরেন তিনি। মুস্তফা কামাল বলেন, দেশে প্রতি বছর জানুয়ারি আর জুলাইয়ে চালের দাম কিছুটা বেড়ে যায়। তারই ধারাবাহিকতায় জানুয়ারিতে মোটা চালের দাম কিছুটা বেড়েছে।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow