Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বুধবার, ২৩ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, বুধবার, ২৩ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : বুধবার, ১ মার্চ, ২০১৭ ০০:০০ টা আপলোড : ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ২৩:৪৫
দ্বিতীয় দফায় গ্যাসের দাম বৃদ্ধিতে ৬ মাসের স্থগিতাদেশ
নিজস্ব প্রতিবেদক

আগামী জুনে দ্বিতীয় দফায় গ্যাসের মূল্যবৃদ্ধির সিদ্ধান্তের ওপর ৬ মাসের নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে হাই কোর্ট। গতকাল বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন দুই ধাপে গ্যাসের দাম বাড়ানোর যে গণবিজ্ঞপ্তি দিয়েছে তা কেন অবৈধ ঘোষণা করা হবে না— তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেছে আদালত।

চার সপ্তাহের মধ্যে এনার্জি রেগুলেটরি কমিশনের চেয়ারম্যান ও সচিবকে এই রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

গত ২৩ ফেব্রুয়ারি বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন (বিইআরসি) গৃহস্থালি কাজে ও গাড়িতে জ্বালানি হিসেবে ব্যবহূত গ্যাসের দাম বাড়িয়ে গণবিজ্ঞপ্তি দেয়। সেখানে বলা হয়, আবাসিক গ্রাহকদের ১ মার্চ থেকে এক চুলার জন্য মাসে ৭৫০ টাকা এবং দুই চুলার জন্য ৮০০ টাকা দিতে হবে। আর দ্বিতীয় ধাপে ১ জুন থেকে এক চুলার জন্য মাসিক বিল ৯০০ টাকা এবং দুই চুলার জন্য ৯৫০ টাকা হবে। এ ছাড়া যানবাহনে জ্বালানি হিসেবে ব্যবহূত রূপান্তরিত প্রাকৃতিক গ্যাসের (সিএনজি) দাম ১ মার্চ থেকে প্রতি ঘনমিটারে ৩৮ টাকা এবং ১ জুন থেকে ৪০ টাকা করার ঘোষণা দেওয়া হয়। ভোক্তা সংগঠন ক্যাবের এক রিট আবেদনের শুনানি নিয়ে বিচারপতি মইনুল ইসলাম চৌধুরী ও বিচারপতি জে বি এম হাসানের হাই কোর্ট বেঞ্চ রুলসহ এ নিষেধাজ্ঞা দেন। আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী মোহাম্মদ সাইফুল আলম। রাষ্ট্রপক্ষে আদালতে উপস্থিত ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল মোতাহার হোসেন সাজু। আদালতে আইনজীবী সাইফুল আলম বলেন, ‘বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন আইন, ২০০৩ এর ৩৪ ধারায় বলা হয়েছে, কমিশন কর্তৃক নির্ধারিত ট্যারিফ কোনো অর্থ বছরে একবারের বেশি পরিবর্তন করা যাবে না, যদি না জ্বালানি মূল্যের পরিবর্তনসহ অন্য কোনো রকম পরিবর্তন ঘটে। কিন্তু সরকার ২৩ তারিখের গণবিজ্ঞপ্তি জারি করে ১ মার্চ ও ২ জুন থেকে দুই দফায় দাম বাড়ানোর বিষয়ে বলেছে। এরপর আদালত দ্বিতীয় দফায় গ্যাসের দাম বৃদ্ধির ওপর ছয় মাসের স্থগিতাদেশ দিয়ে রুল জারি করে।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow