Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ৭ ডিসেম্বর, ২০১৭ ০০:০০ টা প্রিন্ট ভার্সন আপলোড : ৬ ডিসেম্বর, ২০১৭ ২৩:২১
সহিংসতা কঠোরভাবে দমন : কাদের
নিজস্ব প্রতিবেদক
সহিংসতা কঠোরভাবে দমন : কাদের
bd-pratidin

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপির নেতা-কর্মীরা সহিংসতা

করলে সরকার তা কঠোরভাবে দমন করবে। দুর্নীতির মামলায় খালেদা জিয়ার আদালতে হাজিরা দিয়ে ফেরার সময় মঙ্গলবার সচিবালয় এলাকায় গাড়ি ভাঙচুর ও সড়কে অগ্নিসংযোগের মধ্য দিয়ে বিএনপি ফের সহিংসতার দিকে যাচ্ছে কি না এ নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন তিনি। একই সঙ্গে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেছেন, আগাম নির্বাচনের কোনো সম্ভাবনাও নেই, পরিকল্পনাও নেই। সমসাময়িক বিষয় নিয়ে গতকাল সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘বিএনপি রাজপথে ফের সহিংসতা শুরু করলে সে অনুযায়ী কঠোর ব্যবস্থা নেবে সরকার। পরিস্থিতি যে রকম রূপ নেবে, একটা কথা আছে না, যেমন কুকুর তেমন মুগুর, পরিস্থিতি যেভাবে দৃশ্যমান হবে জবাবটাও সে রকমই হবে।’ তিনি বলেন, তারা এখন পুলিশের ওপর দোষ দিচ্ছে। পুলিশকে উসকানি তারা কেন দিল? আদালতে গেলেও তারা গোলমাল পাকায়, নিজেরা নিজেদের সঙ্গে হাতাহাতি করে, মারামারি করে। মঙ্গলবার তারা রাস্তায় অবরোধ করতে গেছে। পুলিশ তো বাধা দেবেই। তিনি বলেন, দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচন বর্জনের পর ভোট ঠেকাতে বিএনপির আন্দোলনের সময় যে সহিংতা হয়েছিল, দলটি আবার সেই চর্চাই শুরু করেছে। বিএনপি কেন এই প্র্যাকটিসটা আবার শুরু করেছে? বাস পোড়ানো, গাড়ি পোড়ানো, ভাঙচুর—এটা কি আবারও সেই অশনিসংকেত, ৫ জানুয়ারির নির্বাচনকে কেন্দ্র করে যে সহিংসতা তারা শুরু করেছিল? তিনি বলেন, ‘বারবার আদালতে গিয়ে রাজনৈতিক বক্তব্য দেওয়ার পরও জনগণ তাদের ডাকে সাড়া দিচ্ছে না। কাজেই তারা বিকল্প হিসেবে সহিংসতার দিকে যেতে পারে, এটা অনুমান করা তো মিথ্যা নয়। তার ইন্ডিকেশন তো আমরা মঙ্গলবার দেখলাম।’ আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘সংবিধান অনুযায়ী নির্ধারিত সময়েই জাতীয় সংসদ নির্বাচন হবে। আগাম নির্বাচনের কোনো সম্ভাবনাও নেই, পরিকল্পনাও নেই। আমি বলেছি, নির্বাচন যদি এক মাস বা তিন মাস পরও হয়, আমরা প্রস্তুত। তবে যথাযথ সময়ের আগে নির্বাচন হবে এমন কোনো পরিকল্পনা এখনো সরকারের নেই; এবং আমরা দলীয়ভাবেও সেই চিন্তাভাবনা করছি না।’ এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, খালেদা জিয়াকে সাজা দিয়ে নির্বাচনের বাইরে রাখার কোনো পরিকল্পনা সরকারের নেই। বিচার বিভাগ স্বাধীন, আদালতে সরকারের কোনো হস্তক্ষেপ নেই।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow