Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : ১১ অক্টোবর, ২০১৬ ১৬:০৬
বিশ্বজুড়ে বিয়ের যত অদ্ভুত নিয়ম
অনলাইন ডেস্ক
বিশ্বজুড়ে বিয়ের যত অদ্ভুত নিয়ম

বিয়ের নিয়ম-কানুনের ব্যাপারে একেক দেশে একেক রীতি। এক দেশের নিয়মের সাথে অন্য দেশের নিয়মের কোন মিলও নেই।

আবার কিছু কিছু দেশ আছে যাদের বিয়ের রীতিনীতি একেবারেই অদ্ভুত! বিশ্বজুড়ে চারটি দেশের বিয়ের কিছু আজব নিয়মের কথা জেনে নেওয়া যাক-

এক. রাশিয়া
দেশের জন্য প্রাণ দিয়েছেন যেসব সৈনিক, তাঁর কবরের সামনে দাঁড়িয়ে বিয়ে করলে নাকি বিয়ে পোক্ত হয়- এমনটাই বিশ্বাস রাশিয়ার মানুষদের। কোন রুশ সেনার কবরস্থানে বিয়ে করতে পারাটাও সেখানকার মানুষের কাছে অনেক সম্মানের।

দুই. ফিনল্যান্ড
বিয়ের পিঁড়িতে বসার আগে প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে হয় ফিনল্যান্ডের পুরুষ ও নারীদের। হবু স্ত্রীকে কাঁধে চাপিয়ে দৌড়াতে হয় পুরুষদের। যিনি এই প্রতিযোগিতায় প্রথম হন, তাকেই সামাজিকভাবে স্বীকৃতি দেওয়া হয় বিয়ের জন্য। ফিনল্যান্ডের বাসিন্দারা মনে করেন, এমন দৌড় সম্পর্ক আরো মজবুত করবে।

তিন. ফ্রান্স
ফরাসিদের বিয়ের আসরে কমোডের মতো দেখতে একটি পাত্র রাখা থাকত। যেখানে রাখা হতো সুরা। সদ্য বিবাহিত দম্পতিরা সেই পাত্রে এক প্রকার মুখ ঢুকিয়ে সুরাপান করতেন! তবেই সম্পূর্ণ হতো বিবাহ প্রক্রিয়া। এমনটাই ছিল ফরাসিদের রীতি। তবে অনেকেরই এই রীতি নিয়ে আপত্তি ছিল।

চার. চীন
যে কোন উপায়ে হবু স্ত্রী'র বন্ধুদের মন জয় করতে হবে স্বামীকে। তাহলেই মিলবে বিয়ের অনুমতি। বিয়ের আগে হবু স্ত্রী'র তিন চারজন বন্ধু বরকে ঘিরে বসে। তারপর নানাভাবে তাকে উত্যক্ত করার পালা চলতে থাকে। এর মধ্যে রেগে গেলে কিছুতেই চলবে না। সব আবদার মেটালেই তারা কনেকে বিয়ের অনুমতি দেবে। তারপর বিয়ে। কখনো মোটা অঙ্কের টাকার দাবি, কখনো আবার নাচ দেখানো বা গান শোনানোর আবদারও মেনে নিতে হয় চীনের ছেলেদের।

বিডি-প্রতিদিন/এ মজুমদার

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow