Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শুক্রবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : ৬ অক্টোবর, ২০১৬ ০৫:২৮
কর্মক্ষমতা বাড়াতে চাই নীরবতা
অনলাইন ডেস্ক
কর্মক্ষমতা বাড়াতে চাই নীরবতা

বেশি কথা বলা ভাল লক্ষণ নয়! তাছাড়া বেশি কথায় ক্লান্তি বাড়ে। অপরদিকে কম কথা বা চুপ থাকার মাঝে রয়েছে কিছু উপকারিতা।

এই বিষয়ে গবেষকদের অধিকাংশের দাবি, চুপ থাকলে কমে চিন্তা, বাড়ে কর্মক্ষমতা। কম কথায় মস্তিষ্ক ভীষণভাবে উপকৃত হয়ে থাকে।

গবেষণায় জানা যায় নিরবতার কিছু উপকারিতা। যেমন- নিরবতা মানুষের জ্ঞানের বিকাশে সাহায্য করে। এর ফলে ভাষার দক্ষতা বাড়ে। নিরবে সমস্ত আবেগগুলিকে মগজে একত্রিত করে বিচার-বিশ্লেষণ করা যায়। এতে ঠিক-বেঠিকের সঠিক সিদ্ধান্ত নেওয়া যায়। প্রতিদিন দুই মিনিটের নীরবতা গান শোনার থেকেও বেশি স্বস্তি দেয় মানুষের মস্তিষ্ককে। শান্ত ব্যক্তিরা প্রতিকূল পরিস্থিতি বেশি ভাল সামাল দিতে পারেন। নীরবতা মগজের নতুন কোষগুলি বৃদ্ধিতেও সাহায্য করে থাকে।

নীরবতার এতো উপকারিতা জেনেই প্রাচীনকালের মুনি-ঋষিরাও ধ্যানের কথা বলে গেছেন।

বিডি প্রতিদিন/এ মজুমদার

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow