Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বুধবার, ১৮ জানুয়ারি, ২০১৭

প্রকাশ : ৪ জুলাই, ২০১৬ ১৫:১০
আপডেট :
এই একবার আমরা ব্যর্থ হয়েছি: জয়
অনলাইন ডেস্ক
এই একবার আমরা ব্যর্থ হয়েছি: জয়

গুলশানে হলি আর্টিসান বেকারি রেস্তোরাঁয় জঙ্গি হামলায় জড়িতরা মুসলমান নয় মন্তব্য করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পুত্র ও তার তথ্যপ্রযুক্তি–বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয় বলেছেন, সন্ত্রাসীদের কোন ধর্ম নেই। এটা ভয়ানক বর্বরোচিত হামলা। কিছু মানুষ আওয়ামী লীগের ওপর অবহেলার অভিযোগ আনছেন। কিন্তু গত তিন বছরে ব্লগার ও বিদেশিদের ওপরে হামলায় অংশগ্রহণকারী প্রায় সব খুনিকে সরকার গ্রেফতার করেছে। গত সাত বছরে প্রায় প্রতি মাসেই অস্ত্র ও বিস্ফোরক উদ্ধার করা হয়েছে। এই একবার আমরা ব্যর্থ হয়েছি। কেউই শতভাগ সফল হতে পারে না। আমাদের চেয়ে আরও অনেক বেশি সক্ষমতা আছে, এমন অনেক ধনী দেশেও এমন সন্ত্রাসী আক্রমণ হয়েছে।

আজ সোমবার ভোরে ফেসবুকে নিজের ভেরিফায়েড পেজে এক স্ট্যাটাসে জয় এ মন্তব্য করেন।

সন্ত্রাসী হামলায় নিহত ব্যক্তিদের পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান তিনি। সন্ত্রাসীদের থামাতে গিয়ে যেসব পুলিশ কর্মকর্তা জীবন দিয়েছেন, তাদের পরিবারের প্রতিও সমবেদনা জানান তিনি।

জয় বলেন, ''ভাবতে চেষ্টা করছিলাম কী লিখব, কিন্তু কোনো শব্দ খুঁজে পাচ্ছিলাম না। এটি ভয়ানক, বর্বরোচিত হামলা। এই হত্যাকারীরা মুসলমান নয়। সন্ত্রাসীদের কোনো ধর্ম নেই। ''

''হত্যার শিকার ব্যক্তিদের, বিশেষ করে, যে পুলিশ কর্মকর্তাগণ সন্ত্রাসীদের থামাতে গিয়ে নিজেদের প্রাণদান করেছেন তাদের পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানাই। ''

তিনি বলেন, ''বিদেশি অতিথির প্রতি আতিথেয়তা আমাদের সংস্কৃতির অন্যতম উজ্জ্বল নিদর্শন। এই সন্ত্রাসীরা এটি বন্ধ করতে চায়। আমরা তাদেরকে সফল হতে দিতে পারি না। সকল ব্যক্তি ও ধর্মকে বাংলাদেশ সবসময়েই স্বাগত জানাতে প্রস্তুত আছে। ''

''দুঃখজনক যে কিছু লোক আবারও আওয়ামী লীগের উপর অবহেলার আরোপ আনছেন। গত তিন বছরে ব্লগার ও বিদেশীদের উপরে হামলায় অংশগ্রহণকারী প্রায় সকল খুনিকে আমরা গ্রেফতার করেছি। আমাদের সরকারের গত সাত বছরে প্রায় প্রতি মাসেই অস্ত্র এবং বিস্ফোরক উদ্ধার করেছি। এমন প্রতিটি উদ্ধারে ব্যর্থতায় আজকের এই হামলার মতো কোন হামলা হতো। সরকারকে ধন্যবাদ যে, এরকম হয়নি। ''

প্রধানমন্ত্রীর তথ্যপ্রযু্ক্তি উপদেষ্টা আরও বলেন, ''কেউই শতকরা ১০০ ভাগ সফল হতে পারে না। এই একবার আমরা ব্যর্থ হয়েছি। আমাদের চেয়ে আরও অনেক বেশী সক্ষমতা আছে, এমন অনেক ধনী দেশেও এমন সন্ত্রাসী আক্রমণ হয়েছে। ''

''বাস্তবতা এটি যে, এই সন্ত্রাসীরা শিক্ষিত মধ্যবিত্ত পরিবার থেকে এসেছে। এমন আরও অনেক আছে। এরা আপনার প্রতিবেশী হতে পারে, আত্মীয় হতে পারে, ছেলে হতে পারে। আমাদের দেশকে নিরাপদ রাখবার জন্য আমাদের প্রত্যেককে সতর্ক প্রহরার দায়িত্ব নিতে হবে। ধর্মের নামে মিথ্যে বলে আমাদের যুব সমাজের মগজ ধোলাই এর প্রক্রিয়াকে প্রতিহত করা অন্য যে কোন কিছুর চেয়ে জরুরী। একাজে আমাদেরকে একতাবদ্ধ হতে হবে। ''


বিডি-প্রতিদিন/এস আহমেদ

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow