Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ৩ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : ১২ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ১৩:১৮
ঈদ জামাত কখন কোথায়
অনলাইন ডেস্ক
ঈদ জামাত কখন কোথায়
সংগৃহীত ছবি

বরাবরের মত এবারও বাংলাদেশে ঈদুল আজহার প্রধান জামাত হবে জাতীয় ঈদগাহ ময়দানে, সকাল ৮টায়। এবার জাতীয় ঈদগাহে ঈদের নামাজে ইমামতি করবেন বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের জ্যেষ্ঠ পেশ ইমাম মাওলানা মুহাম্মদ মিজানুর রহমান। বিকল্প ইমাম হিসেবে উপস্থিত থাকবেন বায়তুল মুকাররম জাতীয় মসজিদের পেশ ইমাম মাওলানা মহিউদ্দিন কাসেম।

আবহাওয়া খারাপ থাকলে প্রধান জামাত সকাল সাড়ে ৮টায় বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদে প্রধান জামাত হবে। রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ, মন্ত্রিসভার সদস্য, সংসদ সদস্য, রাজনীতিবিদসহ সব শ্রেণি-পেশার মানুষ মঙ্গলবার সকালে ঈদের প্রধান জামাতে অংশ নেবেন। বায়তুল মোকাররমে এবারও পাঁচটি জামাত হবে। প্রথম জামাত হবে সকাল ৭টায়। সকাল ৮টা, ৯টা, ১০টা এবং পৌনে ১১টায় হবে পরের জামাতগুলো।  

সকাল সাড়ে ৭টায় সংসদ ভবনের দক্ষিণ প্লাজায় একটি ঈদ জামাত হবে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মসজিদে সকাল ৮টা ও ৯টায় হবে দুটি জামাত। এছাড়া সলিমুল্লাহ হলের মাঠ এবং শহীদুল্লাহ হলের লনে সকাল ৮টায় দুটি ঈদের নামাজ হবে।

আবহাওয়াবিদদের ধারণা ঠিক থাকলে এবার ‘ভালো’ আবহাওয়ার মধ্যেই কোরবানির ঈদ উদযাপন করতে পারবে বাংলাদেশের মানুষ; বিকালের পর দুয়েক পশলা বৃষ্টিরও দেখা মিলতে পারে।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন এলাকায় জাতীয় ঈদগাহ ময়দানসহ ২৪৯টি স্থানে ঈদের জামাতের আয়োজন করা হয়েছে। ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন এলাকায় ১৮০টি স্থানে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে। প্রতিটি ওয়ার্ডে ৫টি স্থানে ঈদের জামাতের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

চট্টগ্রাম

চট্টগ্রামে জমিয়তুল ফালাহ জাতীয় মসজিদে সকাল পৌনে ৮টায় হবে ঈদুল আজহার প্রধান জামাত। ইমামতি করবেন এ মসজিদের জ্যেষ্ঠ পেশ ইমাম মাওলানা নূর মোহাম্মদ সিদ্দিকী। একই জায়গায় সকাল পৌনে ৯টায় দ্বিতীয় জামাতে ইমামতি করবেন একই মসজিদের পেশ ইমাম মুফতি মোহাম্মদ জালাল উদ্দিন।

এছাড়াও লালদিঘী সিটি করপোরেশন জামে মসজিদে ঈদ জামাত হবে সকাল সাড়ে ৭টায়, বাকলিয়া সিটি করপোরেশন স্টেডিয়াম এবং জালালাবাদ আরেফিন নগর কবরস্থান জামে মসজিদে ঈদ জামাত সকাল ৮টায় অনুষ্ঠিত হবে। চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের (সিসিসি) জনসংযোগ বিভাগের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, নগরীর ৪১টি ওয়ার্ডে মোট ১৬৬টি ঈদ জামাত অনুষ্ঠিত হবে।

সিলেট

সিলেটে ঈদুল আজহার প্রধান জামাত হবে শাহী ঈদগাহে সকাল ৮টায়। ইমামতি করবেন বন্দরবাজার কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের ইমাম হাফিজ কামাল উদ্দিন। একই সময়ে দরগাহে হযরত শাহজালাল (র.) মাজার জামে মসজিদ, সিলেট কালেক্টরেট জামে মসজিদে ঈদুল আজহার জামাত অনুষ্ঠিত হবে।

নগরীর বন্দর বাজারের হাজী কুদরত উল্লাহ জামে মসজিদে তিনটি জামাত হবে। প্রথম জামাত সকাল সাড়ে ৭টায়, দ্বিতীয় জামাত সাড়ে ৮টায় এবং তৃতীয় জামাত সাড়ে ৯টায়। কাজিরবাজার মাদরাসায় জামাত সকাল সাড়ে ৭টায় অনুষ্ঠিত হবে। এ ছাড়া সিলেট নগরীর প্রায় ৫০টি স্থানে ঈদুল আজহার জামাত অনুষ্ঠিত হবে।

খুলনা

খুলনায় ঈদুল আজহার প্রথম জামাত হবে সকাল ৮টায় খুলনা সার্কিট হাউজ ময়দানে। খুলনা টাউন জামে মসজিদে সকাল ৯টায় দ্বিতীয় জামাত হবে। তবে আবহাওয়া খারাপ থাকলে সকাল ৮টা, ৯টা এবং ১০টায় টাউন জামে মসজিদে পর পর তিনটি জামাত হবে।

খুলনা সিটি কর্পোরেশন (কেসিসি) পরিচালিত বায়তুন নূর জামে মসজিদে সকাল সাড়ে ৮টায় ও সকাল সাড়ে ৯টায়  দুটি জামাত অনুষ্ঠিত হবে। কেসিসি’র ৩১টি ওয়ার্ডে পৃথকভাবে ওয়ার্ড কাউন্সিলরগণের তত্ত্বাবধানে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে বলে জানিয়েছেন খুলনা জেলা প্রশাসক নাজমুল আহসান।

রংপুর

রংপুরে ঈদুল আজহার প্রধান জামাত হবে সকাল সাড়ে ৮টায় কালেক্টরেট ঈদগাহ মাঠে। তবে দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়া থাকলে নামাজ সকাল পৌনে ৯টায় এবং সোয়া ৯টায় কোর্ট জামে মসজিদে অনুষ্ঠিত হবে।

এছাড়া সকাল সাড়ে ৯টা থেকে ১০টা পর্যন্ত নগরীর কারামতিয়া জামে মসজিদ মাঠ, জিলা স্কুল মাঠ, পুলিশ লাইন্স ঈদগাহ মাঠ, মুন্সীপাড়া কবরস্থান ঈদগাহ মাঠ, জুম্মাপাড়া নুরুল উলুম হাফিজিয়া মাদ্রাসা মাঠ, কামাল কাছনা জামে মসজিদ মাঠ, রংপুর কারমাইকেল কলেজ মাঠ, মেডিকেল কলেজ মাঠ, বাস টার্মিনাল মসজিদ মাঠ, মাহিগঞ্জ তালতলা জামে মসজিদ ও শাহী মসজিদ ঈদগাহ মাঠসহ শতাধিক স্থানে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে।

বরিশাল

বরিশালে ঈদুল আযহার প্রধান জামাত অনুষ্ঠিত হবে নগরীর বান্দ রোডের হেমায়েত উদ্দিন কেন্দ্রীয় ঈদগাহ ময়দানে সকাল ৮টায়। সিটি মেয়র আহসান আহসান হাবীব কামাল, বিভাগীয় কমিশনার মো. গাউস, জেলা প্রশাসক ড. গাজী মো. সাইফুজ্জামানসহ স্থানীয় শীর্ষ রাজনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক নেতৃবৃন্দ এবং প্রশাসনের শীর্ষ কর্মকর্তাসহ বিভিন্ন শ্রেনীর পেশার কয়েক হাজার মানুষ এখানে ঈদের নামাজ আদায় করবেন।  

বরিশালের সর্ব বৃহৎ ঈদ জামাত অনুষ্ঠিত হবে সদর উপজেলার চরমোনাই দরবার শরীফ মাঠে সকাল ৯টায়। ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের নায়েবে আমীর মুফতি ফয়জুল করিম এখানে ঈদ জামাতে ইমামতি করবেন। এছাড়া পিরোজপুরের স্বরূপকাঠীর ছারছিনা দরবার শরীফ মাঠে সকাল সাড়ে ৮টায়, ঝালকাঠীর হযরত কায়েদ সাহেব হুজুর প্রতিষ্ঠিত এন.এফ. কামিল মাদ্রাসা ময়দানে সকাল ৮টায়, পটুয়াখালীর মীর্জাগঞ্জের হযরত ইয়ারউদ্দিন খলিফা (রা.) মাজার শরীফে সকাল সাড়ে ৭টায় এবং বরিশালের উজিরপুর উপজেলার গুঠিয়ার বায়তুল আমান মসজিদ কমপ্লেক্সে সকাল ৮টায় বরিশাল বিভাগের ঈদ জামাত অনুষ্ঠিত হবে।  

অপরদিকে নগরীর কয়েকটি মসজিদে দুটি করে ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে। নগরীর জামে কসাই মসজিদে সকাল ৮টায় প্রথম এবং সাড়ে ৯টায় দ্বিতীয়, জামে এবায়েদুল্লাহ মসজিদে সকাল ৮টায় ও সাড়ে ৯টায়, বায়তুল মোকাররম জামে মসজিদে সকাল সাড়ে ৮টায় ও সাড়ে ৯টায় এবং পুলিশ লাইন্স জামে মসজিদে সকাল সাড়ে ৮টায় ও সাড়ে ৯টায় দুটি করে ঈদ জামাত অনুষ্ঠিত হবে।  

এছাড়া বরিশাল নগরী এবং বিভাগের ৬ জেলাসহ একাধিক ঈদ জামাত অনুষ্ঠিত হবে বলে  জানিয়েছে জাতীয় ইমাম সমিতি।

 

বিডি প্রতিদিন/১২ সেপ্টেম্বর, ২০১৬/ফারজানা

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow