Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ১২ জানুয়ারি, ২০১৮ ১৮:১৫ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ১২ জানুয়ারি, ২০১৮ ২০:৪১
অব্যবস্থাপনার বলি সাড়ে আট হাজার শিক্ষার্থী
আট ব্যাংকের এক কেন্দ্রের পুনরায় পরীক্ষা ২০ জানুয়ারি
আকতারুজ্জামান:
আট ব্যাংকের এক কেন্দ্রের পুনরায় পরীক্ষা ২০ জানুয়ারি
প্রতীকী ছবি

সরকারি আট ব্যাংক/ আর্থিক প্রতিষ্ঠানে এক হাজার ৬৬৩ সিনিয়র অফিসার নিয়োগের বহুনির্বাচনী পরীক্ষার (এমসিকিউ) তারিখ নির্ধারিত ছিল আজ শুক্রবার। বিকাল সাড়ে তিনটা থেকে সাড়ে চারটা পর্যন্ত ঘণ্টাব্যাপী একশত নম্বরের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। কিন্তু পরীক্ষা দিতে গিয়ে বাংলাদেশ ব্যাংকের ব্যাংকার’স সিলেকশন কমিটি (বিএসসি) ও একটি কেন্দ্র কর্তৃপক্ষের অব্যবস্থাপনার বলি হয়েছেন আট হাজার ৪৬৭ চাকরিপ্রার্থী। এই চাকরিপ্রার্থীরা পরীক্ষায় অংশ নিতে পারেন নি। 

এরা সবাই মিরপুর ১ এ অবস্থিত হযরত শাহ্ আলী মহিলা কলেজে কেন্দ্রে পরীক্ষার জন্য প্রবেশপত্র সংগ্রহ করেছিলেন। এই প্রার্থীদের জন্য পুনরায় পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা করেছে বিএসসি। আগামী ২০ জানুয়ারি এ পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। ঐদিন বিকাল সাড়ে তিনটায় মিরপুর বাংলা কলেজ ও হযরত শাহ্ আলী মহিলা কলেজে এই পরীক্ষা নেওয়া হবে। 

কেন্দ্রে পরীক্ষা শুরুর নির্ধারিত সময়ের পূর্বেই আসেন চাকরিপ্রার্থী সেলিম রেজা। পরীক্ষার জন্য শাহ্ আলী মহিলা কলেজে কেন্দ্রে প্রবেশ করে দেখেন নির্ধারিত কক্ষে বেঞ্চগুলোতে কোন আসন নির্দিষ্ট করা নেই। শুধু কক্ষের সামনে নিদিষ্ট রোল থেকে নির্দিষ্ট রোলের প্রার্থীদের বসার কথা বলা হয়েছে। প্রায় ৪০ শতাংশ প্রার্থী পরীক্ষায় অনুপস্থিত থাকবে এমন উদ্ভট ধারণা নিয়ে কলেজ কর্তৃপক্ষ আসনের ব্যবস্থা করে। কিন্তু পরীক্ষার জন্য আবেদন করা প্রার্থীদের অধিকাংশ (৮০ শতাংশের বেশি) পরীক্ষা কেন্দ্রে উপস্থিত হলে বাধে বিপত্তি। দেখা দেয় আসন সঙ্কটের। চাকরিপ্রার্থীরা আসন না পেয়ে বাইরে এসে বিক্ষোভ করতে থাকে। বন্ধ হয়ে যায় এ কেন্দ্রে পরীক্ষা নেওয়ার আয়োজন। কয়েকটি পরীক্ষা কক্ষের ওএমআর শীটও ছিড়ে ফেলে চাকরিপ্রার্থী তরুণ-তরুণীরা। কেন্দ্রটিতে পরীক্ষা দিতে আসা একাধিক তরুণ-তরুণী প্রতিবেদককে এসব তথ্য জানায়। উদ্ভুত পরিস্থিতিতে ‘হযরত শাহ্ আলী মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ ময়েজ উদ্দিন কেন্দ্রটির পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে’ ঘোষণা দেন।

এরপর বিকালেই কলেজটিতে উপস্থিত হন বিএসসি’র সদস্য সচিব মো. মোশাররফ হোসেন খান। কর্তৃপক্ষের সাথে বৈঠক শেষে পুনরায় পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা করেন। মোশাররফ হোসেন খান বাংলাদেশ প্রতিদিনকে জানান, ‘কাল শনিবারের পরের শনিবার (২০ জানুয়ারি) এ কেন্দ্রের পরীক্ষা পুনরায় অনুষ্ঠিত হবে। যারা ইতোমধ্যে প্রবেশপত্র সংগ্রহ করেছে তারাই শুধু পরীক্ষায় অংশ নিতে পারবেন। মিরপুর বাংলা কলেজ ও হযরত শাহ্ আলী মহিলা কলেজে এই পরীক্ষা নেওয়া হবে বলে জানান তিনি।


বিডি প্রতিদিন/১২ জানুয়ারি ২০১৮/হিমেল

আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর
up-arrow