Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : ১৮ আগস্ট, ২০১৮ ১০:৫৬ অনলাইন ভার্সন
আপডেট : ১৮ আগস্ট, ২০১৮ ১৫:০৮
এলএনজি যুগে দেশ
অনলাইন ডেস্ক
এলএনজি যুগে দেশ
bd-pratidin

শনিবার জাতীয় গ্রিডে এলএনজির সরবরাহ শুরুর মধ্যে দিয়ে এলএনজির যুগও শুরু হল। বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন তীব্র গ্যাস-সংকটের সমাধানে এ গ্যাস দেশবাসী ও শিল্প কারখানা মালিকদের আশার কথা শোনাবে।

আজ সকালে কর্ণফুলী গ্যাস কোম্পানির পাইপলাইনে আনুষ্ঠানিকভাবে এলএনজি সরবরাহ শুরু হয়।

প্রতিদিন ২৮৩ কোটি ঘনফুট গ্যাস সরবরাহ করে রাষ্ট্রায়ত্ত সংস্থা পেট্রোবাংলা। দেশে গ্যাসের চাহিদা এর চেয়ে অনেক বেশি। গ্যাসের অভাবে দেশের শিল্পকারখানা পুরোদমে উৎপাদনে যেতে পারছে না। সারা দেশে সাড়ে ৩ হাজারের বেশি শিল্পকারখানায় গ্যাস সংযোগের অনুমতি দিয়েও সংকটের কারণে গ্যাস দিতে পারছে না সরকার। এ সংকট সমাধানে সরকার এলএনজি আমদানির পরিকল্পনা করে।

 পেট্রোবাংলা সূত্রে জানা গেছে, এলএনজি দিয়ে চট্টগ্রামের চাহিদা মিটে গেলে দেশের অন্যান্য স্থানে গ্যাসের চাপ বেড়ে যাবে।

বিশেষ করে সিলেট হবিগঞ্জ এলাকায় গ্যাস উদ্বৃত্ত থাকবে। এ গ্যাস বিক্রি করার মতো এখন পর্যাপ্ত শিল্প গ্রাহক নেই। যারা আছেন তাদের আঙ্গিনায় গ্যাস পৌঁছে দেয়ার মতো সঞ্চালন লাইনও নেই।
দীর্ঘদিন ধরে এ সঞ্চালন লাইন নির্মাণ বন্ধ রয়েছে। পেট্রোবাংলার শীর্ষ কর্মকর্তাদের বক্তব্য, সরকারকে দ্রুত সময়ের মধ্যে সঞ্চালন লাইন নির্মাণের অনুমতি দেয়ার সিদ্ধান্ত নিতে হবে।

এলএনজি প্রকল্পের দায়িত্বে নিয়োজিত আরপিজিসিএলের এক কর্মকর্তা জানান, টার্মিনালটি থেকে প্রতিদিন ৫০ কোটি ঘনফুট গ্যাস সরবরাহ করা হবে। ১৫ বছরের চুক্তির আওতায় এলএনজি রিগ্যাসিফিকেশন করে এ গ্যাস সরবরাহ করবে এক্সিলারেট এনার্জি। এলএনজি আমদানির দায়িত্ব পেট্রোবাংলার। প্রাথমিক অবস্থায় ২৫ থেকে ৩০ কোটি ঘনফুট গ্যাস নেয়া হবে। অক্টোবরের পর নতুন আরেকটি পাইপলাইন বসলে ৫০ কোটি ঘনফুট গ্যাস পাওয়া যাবে।

বিডি-প্রতিদিন/ সালাহ উদ্দীন

আপনার মন্তব্য

এই পাতার আরো খবর
up-arrow