Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ২ জুন, ২০১৬ ০০:০০ টা আপডেট : ১ জুন, ২০১৬ ২৩:৪২
স্বাস্থ্য প্রতিদিন
রোজার আগে হৃদরোগীদের প্রস্তুতি
রোজার আগে হৃদরোগীদের প্রস্তুতি

আগামী সপ্তাহ থেকে শুরু হচ্ছে পবিত্র রমজান মাস। ছোট শিশু, জইব ও রোগাক্রান্ত ব্যক্তিদের জন্য রোজা ফরজ নয়, যদি রোজার কারণে তার অসুস্থতার তীব্রতা বৃদ্ধি পাওয়ার ঝুঁকি থাকে। হৃদরোগী-দের চিকিৎসার হাতিয়ার হিসেবে আমরা চিকিৎসকরা অনেক ধরনের মেডিসিন ব্যবহার করে থাকি। রোজা রাখার ফলে যদি আমরা বিবেচনা করি যে এসব মেডিসিন গ্রহণের যে বিচ্যুতি হবে, তাতে রোগীর অসুস্থতা বৃদ্ধি পাবে। হৃদরোগীদের বেলায় আরও কিছু বাড়তি সতর্কতা হিসেবে রোগীর রক্তের সুগার কন্ট্রোল, কোলেস্টেরলের মাত্রা নিয়ন্ত্রণ অতীব জরুরি। রোজা রাখার ক্ষেত্রে এ দুটি বিষয় আমরা প্রধান্য দিয়ে থাকি। যেসব হৃদরোগী এমন ধরনের ঝুঁকিতে আছেন যে, রোজা রাখার ফলে রক্তে সুগার-কোলেস্টেরল অনিয়ন্ত্রিত হয়ে যেতে পারে, তাদের জন্য রোজা না রাখাই উচিত। যারা হার্ট ফেইলুরজনিত হৃদরোগে ভুগছেন মানে হৃদরোগে জটিলতা হিসেবে পা ফুলে যায় বা হৃদরোগজনিত শ্বাসকষ্টে আক্রান্ত হয়ে থাকেন, তাদের বেলায় রোজা রাখার ফলে খাদ্য ও মেডিসিন গ্রহণে (অনিয়ন্ত্রিত রক্তচাপ ও হার্টের রক্ত প্রবাহের সমস্যা সৃষ্টি ইত্যাদি বিষয় অবশ্যই বিবেচনায় রাখতে হবে) বিচ্যুতির ফলে তাদের অসুস্থতা বৃদ্ধির সমূহ সম্ভাবনা থাকে, তাই হার্ট ফেইলুরের রোগীদের জন্য রোজা না রাখাই উত্তম।

ডা. এম. শমশের আলী, সিনিয়র কনসালট্যান্ট, ঢাকা মেডিকেল কলেজ এবং মুন ডায়াগনস্টিক সেন্টার, বাবর রোড, ঢাকা।




up-arrow