Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শুক্রবার, ২০ অক্টোবর, ২০১৭

ঢাকা, শুক্রবার, ২০ অক্টোবর, ২০১৭
প্রকাশ : রবিবার, ৩ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৩ জুলাই, ২০১৬ ০০:২৭
খালেদ সাইফুল্লাহর বাবাও নিখোঁজ
মাদারীপুর প্রতিনিধি

মাদারীপুর সরকারি নাজিমউদ্দিন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের গণিত বিভাগের শিক্ষক রিপন চক্রবর্তীকে হত্যাচেষ্টার অভিযোগে  গ্রেফতার খালেদ সাইফুল্লাহ জামিলের (২৬) বাবা কাজী বেলায়েত হোসেনকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না।

জানা গেছে, খালেদ সাইফুল্লাহ জামিলকে গত মঙ্গলবার রাত ১টার দিকে পুলিশ পরিচয়ে আটক করে নিয়ে যাওয়া হয়।

এর পর থেকে তার কোনো সন্ধান পাওয়া যাচ্ছিল না। ওইদিন সকালে ছেলের খোঁজ করতে বের হয়ে তার বাবা কাজী বেলায়েত হোসেনও নিখোঁজ রয়েছেন। মাদারীপুর পুলিশ সুপার সরোয়ার হোসেন বলেন, ‘আমরা তার নিখোঁজের বিষয়ে কিছু জানি না। ওরা একটা জঙ্গি পরিবার। ছেলে নিখোঁজ হওয়ার পর তো উনি ছেলের খোঁজে থানায়ও গিয়েছিলেন। এরপর কোথায় আছেন জানি না। ’ এদিকে খালেদ সাইফুল্লাহর পরিবার দাবি করছে, মঙ্গলবার মধ্যরাতে ডাসারের গোপালপুর বড় মসজিদ থেকে পুলিশ পরিচয়ে সাদা পোশাকে একদল লোক খালেদ সাইফুল্লাহকে আটক করে।

এ সময় খালেদের মামা গোপালপুর উচ্চবিদ্যালয়ের শিক্ষক গোলাম রসুল রিটনকেও আটক করা হয়। তাদের সঙ্গে বাঁশতলা মসজিদের ইমাম মোহাম্মদ পারভেজ ও তারাবি নামাজের ইমাম সাজ্জাদ হোসেনকে আটক করা হয়।

রাতে মাদারীপুর শহরের গোলাবাড়ী এলাকায় খালেদ সাইফুল্লাহ জামিলের বাসায় তল্লাসি চালানো হয়।

এ ঘটনার তিন দিন পর শুক্রবার পুলিশ জানায়, খালেদ সাইফুল্লাহ জামিলকে ঢাকার ডেমরা থেকে আটক করা হয়েছে। ওইদিন দুপুর ১টার দিকে পুলিশ মাদারীপুর শহরের গোলাবাড়ী কাজী ভবনে তল্লাশি চালায়। খালেদ সাইফুল্লাহ জামিল মাদারীপুর সরকারি নাজিমউদ্দিন কলেজের গণিত বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ও বিভাগীয় প্রধান কাজী বেলায়েত হোসেনের বড় ছেলে। তাদের বাড়ি সদর উপজেলার দুধখালী ইউনিয়নের বলসা গ্রামে। বর্তমান ঠিকানা কাজী ভবন, গোলাবাড়ী, মাদারীপুর। জামিলের বাবা কাজী বেলায়েত হোসেন ১৯৯৩ সালের ১৫ নভেম্বর মাদারীপুর সরকারি নাজিমউদ্দিন কলেজে গণিত বিভাগে প্রভাষক হিসেবে যোগদান করেন। তার একাধিক প্রতিবেশী জানান, কাজী পরিবারের লোকজন এলাকার কারও সঙ্গে মেলামেশা করেন না। কারও সঙ্গে তেমন একটা কথাবার্তাও বলেন না।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow