Bangladesh Pratidin

ঢাকা, সোমবার, ১৮ ডিসেম্বর, ২০১৭

ঢাকা, সোমবার, ১৮ ডিসেম্বর, ২০১৭
প্রকাশ : সোমবার, ৪ জুলাই, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৪ জুলাই, ২০১৬ ০২:৪৯
হামলার নিন্দায় ওবামা-প্রণব
ইইউ কানাডা রাশিয়াসহ বিশ্বব্যাপী নিন্দার ঝড়
কূটনৈতিক প্রতিবেদক

বাংলাদেশে সন্ত্রাসী হামলার নিন্দা ও সহানুভূতি জানিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা, ভারতের রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জি ও ইইউর প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড টাস্ক। নিন্দা জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে রাশিয়া, কানাডাসহ বিভিন্ন দেশ।

জানা যায়, গতকাল সন্ধ্যায় বারাক ওবামার পক্ষ থেকে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জন কেরি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ফোন করে প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার নিন্দা ও সহানুভূতির কথা জানান। প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম জানিয়েছেন, মার্কিন প্রেসিডেন্টের পক্ষ থেকে জন কেরি বলেন, সন্ত্রাস ও জঙ্গি নির্মূলে বাংলাদেশকে যে কোনো সহযোগিতা করতে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র সব সময় প্রস্তুত রয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ধন্যবাদ জানিয়ে জন কেরিকে বলেন, অনুসন্ধানমূলক তথ্য দিয়ে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশকে সহযোগিতা করতে পারে। জন কেরিকে প্রধানমন্ত্রী হাসিনা জানান, জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসবাদ মোকাবিলার জন্য তার সরকার পুলিশের ‘কাউন্টার টেররিজম ইউনিট’ গঠন করেছে। সব সময় বাংলাদেশের পাশে থাকার জন্য বারাক ওবামাকে ধন্যবাদ জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এর আগে ভারতের রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জি ঢাকায় গুলশানের একটি ক্যাফেতে কাপুরুষোচিত সন্ত্রাসী হামলার নিন্দা করে বলেছেন, এ ধরনের কাণ্ডজ্ঞানহীন সহিংস কর্মকাণ্ডের কোনো যৌক্তিকতা নেই। রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদের কাছে পাঠানো এক বার্তায় তিনি বলেন, ‘ভারত সব ধরনের সন্ত্রাসের নিন্দা করে। আমরা মনে করি, এ ধরনের কাণ্ডজ্ঞানহীন সহিংস কর্মকাণ্ডের কোনো যৌক্তকতা নেই। ’

নিন্দা জানিয়েছে রাশিয়া : সন্ত্রাসী হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়ে একে অমানবিক ও ক্ষমার অযোগ্য বলে মন্তব্য করেছে রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

পাশাপাশি ওই হামলায় নিহতদের পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা ও আহতদের আশু আরোগ্য কামনা করেছে রাশিয়া। রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের উদ্ধৃতি দিয়ে ঢাকায় রুশ দূতাবাসের এক বিবৃতিতে এসব কথা বলা হয়।

তীব্র নিন্দা কানাডার : ঢাকার গুলশান এলাকায় স্প্যানিশ রেস্টুরেন্টে সন্ত্রাসী হামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছে কানাডা। দেশটি সন্ত্রাস মোকাবিলায় বাংলাদেশ সরকারকে সর্বাত্মক সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছে। ঢাকায় কানাডীয় হাইকমিশনার বিনয়েট-পিয়ের লারামি এখানে এক বিবৃতিতে ‘আমরা এই ভয়াবহ সন্ত্রাসী হামলার তীব্র নিন্দা জানাই’ উল্লেখ করে বলেন, কানাডা ৪০ বছরেরও বেশি সময় ধরে বাংলাদেশের সঙ্গে উন্নয়ন-সহযোগী হিসেবে আছে। তিনি গুলশানের হোলি আর্টিজান বেকারিতে নৃশংস সন্ত্রাসী হামলার জন্য মর্মাহত ও গভীর শোক প্রকাশ করেন।

নিন্দায় ইউরোপীয় ইউনিয়ন : ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ) ঢাকায় হামলায় কয়েকজন বিদেশিসহ নিহতের ঘটনায় তীব্র নিন্দা জানিয়ে সব ধরনের সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধভাবে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছে। ইউরোপিয়ান কাউন্সিলের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড টাস্ক এক বিবৃতিতে বলেন, ‘ঢাকায় জঙ্গি হামলায় ইতালি, জাপান, বাংলাদেশ ও অন্যান্য দেশের নাগরিকদের হতাহতের ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি। ’

সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে যুক্তরাষ্ট্রের সমর্থন : গুলশানে জঘন্য সন্ত্রাসী হামলার জন্য দায়ীদের বিচারের আওতায় আনার প্রচেষ্টায় যুক্তরাষ্ট্র সহযোগিতার প্রস্তাব দিয়েছে। বাংলাদেশে সহিংস সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অঙ্গীকারের সমর্থনে যুক্তরাষ্ট্র এই সহযোগিতার প্রস্তাব দেয়। ইউএস অ্যাসিস্ট্যান্ট সেক্রেটারি অ্যান্ড ডিপার্টমেন্ট স্পোকসপারসন, ব্যুরো অব পাবলিক অ্যাফেয়ার্স জন কিরবি বলেন, ‘আমরা বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ যোগাযোগ রক্ষা করছি এবং ওই হামলায় জড়িতদের আইনের আওতায় আনার প্রচেষ্টায় আমাদের সহায়তার প্রস্তাব দিয়েছি। ’ এক বিবৃতিতে তিনি ‘ঢাকায় বর্বর সন্ত্রাসী কার্যক্রমের’ কঠোর নিন্দা এবং ২০ অথবা ২০ জনের অধিক নিহত ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর নিহত সদস্যদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা ও শোক জানান। বিবৃতিতে তিনি বলেন, ‘আমরা নিশ্চিত হয়েছি যে এই বর্বর হামলায় নিহতদের মধ্যে একজন মার্কিন নাগরিক রয়েছেন। ’

এই পাতার আরো খবর
up-arrow