Bangladesh Pratidin

ঢাকা, সোমবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : শনিবার, ৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০২:৪৭
ঝিনাইদহে বন্দুকযুদ্ধে যুবক নিহত
ঝিনাইদহ প্রতিনিধি

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ এক যুবক নিহত হয়েছেন। পুলিশ বলছে, নিহত যুবক ডাকাত ছিলেন। গতকাল ভোরে উপজেলার পিরোজপুর কড়াইতলা নামক স্থানে এ বন্দুকযুদ্ধ হয়। নিহতের নাম-পরিচয় জানাতে পারেনি পুলিশ। তার বয়স আনুমানিক ৪০ বছর। বন্দুকযুদ্ধের সময় রতন ও আল-আমিন নামে দুই কনস্টেবল আহত হয়েছেন বলে জানিয়েছে পুলিশ। ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করা হয়েছে ১টি শাটারগান, ৫টি হাতবোমা, ২টি গাছ কাটার করাত, ৪টি রামদা, ১ রাউন্ড গুলি ও রশি। কালীগঞ্জ থানার ওসি আমিনুল ইসলাম জানান, রাতে পুলিশ সদস্যরা টহল ডিউটি করছিলেন। টহল গাড়িটি পিরোজপুর কড়াইতলা নামক স্থানে পৌঁছলে রাস্তার ওপর গাছ ফেলা দেখতে পান। পুলিশ নাশকতার আঁচ করতে পেরে গাড়ি থামায়। ডাকাতদল আকস্মিকভাবে পুলিশের গাড়ি লক্ষ্য করে পরপর ৩টি বোমা ছোড়ে। পুলিশ আত্মরক্ষার্থে পাল্টা ১৭ রাউন্ড গুলি চালায়। পরে ঘটনাস্থলে একজনের লাশ পড়ে থাকতে দেখা যায় ও বাকি ডাকাতরা পালিয়ে যায়। পুলিশ অজ্ঞাত ওই ডাকাতের লাশ উদ্ধার করে কালীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে এলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মাহফুজুল আলম সোহাগ তাকে মৃত ঘোষণা করেন। তবে ওসি আরও জানান, গতকাল সন্ধ্যা পর্যন্ত নিহত ডাকাতের নাম ও পরিচয় পাওয়া যায়নি। এদিকে ঝিনাইদহ সদর উপজেলার মহারাজপুর ইউনিয়নের কয়ারগাছি গ্রামের আশ্রয়ণ প্রকল্পের আহমদ আলীর ছেলে শমসের আলী (৪০) নামে এক ব্যক্তিকে পুলিশ পরিচয়ে ধরে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। তিনি ৭ দিন ধরে নিখোঁজ রয়েছেন। নিহত ব্যক্তি তিনিই কিনা তা পরিবারের লোকজন সঠিক হতে পারছেন না।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow