Bangladesh Pratidin

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর, ২০১৬

প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা আপলোড : ৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৬ ২৩:৩২
হজ পালনে সৌদি গেলেন খালেদা জিয়া দেখা হবে মা-ছেলের
নিজস্ব প্রতিবেদক

পবিত্র হজ পালনে সৌদি আরব গেলেন বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। গতকাল বিকাল সাড়ে ৫টায় সৌদি এয়ারলাইনসের এসভি ৮০৩ নম্বর ফ্লাইটে ঢাকা ত্যাগ করেন তিনি।

সৌদি বাদশাহ সালমান বিন আবদুল আজিজের আমন্ত্রণে রাজকীয় অতিথি হিসেবে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া পবিত্র হজ পালনের উদ্দেশ্যে গত রাতে জেদ্দা পৌঁছান। সেখানে অবস্থানকালে তিনি দেশটির রাষ্ট্রীয় অতিথি হিসেবে রয়্যাল প্যালেসে অবস্থান করবেন। এ সময় সপরিবারে তার পুত্র তারেক রহমানও লন্ডন থেকে সেখানে যাবেন। একই সঙ্গে প্রয়াত ছোট ছেলে আরাফাত রহমান কোকোর স্ত্রীরও সেখানে যাওয়ার কথা রয়েছে। ফলে ছেলে, পুত্রবধূ ও নাতনির সঙ্গে দেখা হতে যাচ্ছে সাবেক এই প্রধানমন্ত্রীর। সফরসঙ্গী হিসেবে খালেদা জিয়ার মধ্যপ্রাচ্যবিষয়ক বিশেষ দূত এনাম আহমদ চৌধুরী, তথ্য ও প্রযুক্তিবিষয়ক সম্পাদক শাহ শরীফ কামাল তাজ, একান্ত সচিব এ বি এম আবদুস সাত্তার, ব্যক্তিগত আলোকচিত্রী নুরুদ্দিন আহমেদ ও একজন গৃহপরিচারিকা গেছেন। এর আগে বিকাল সাড়ে ৩টায় গুলশানের বাসভবন ফিরোজা থেকে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের উদ্দেশে রওনা দেন তিনি। ৩টা ৫০ মিনিটে বিমানবন্দরে পৌঁছলে উপস্থিত নেতা-কর্মীরা তাকে বিদায় জানান। এ সময় বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, মির্জা আব্বাস, আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান আবদুল্লাহ আল নোমান, সেলিমা রহমান, মো. শাহজাহান, আবদুল আউয়াল মিন্টু, নিতাই রায়, ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা এম এ কাইয়ুম, হাবিবুর রহমান হাবিব, সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ এমরান সালেহ প্রিন্স, শামা ওবায়েদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। চেয়ারপারসন কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের লন্ডন থেকে তার স্ত্রী ডা. জোবায়দা রহমান ও কন্যা জায়মা রহমানকে নিয়ে গত রাতেই জেদ্দায় পৌঁছানোর কথা রয়েছে। অন্যদিকে খালেদা জিয়ার ছোট ছেলে প্রয়াত আরাফাত রহমান কোকোর স্ত্রীও জেদ্দায় যাবেন। তবে পরীক্ষা থাকায় কোকোর দুই মেয়ে জাহিয়া ও জাফিয়া রহমান এবার মায়ের সঙ্গে সৌদিতে যেতে পারছে না।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow