Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ১৯ আগস্ট, ২০১৭

ঢাকা, শনিবার, ১৯ আগস্ট, ২০১৭
প্রকাশ : শনিবার, ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০০:০০ টা আপলোড : ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ ০২:৩৮
রাষ্ট্রনীতি ও ধর্ম বিশ্বাসের বিরোধ নেই : মসিউর
নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অর্থনীতি বিষয়ক উপদেষ্টা মসিউর রহমান বলেছেন, আমার ধর্ম আমি পালন করছি, রাষ্ট্র আলাদা অন্য ক্যাটাগরির একটা জিনিস। রাষ্ট্রের প্রতি আমার শ্রদ্ধা আছে, রাষ্ট্রকে আমি ভালোবাসি, রাষ্ট্রকে আমি রক্ষা করব।

কিন্তু রাষ্ট্রনীতি এবং আমার ধর্ম বিশ্বাস এই দুটোর ভিতরে কোনো দ্বন্দ্ব নেই, কোনো সংঘর্ষ নেই। গতকাল রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে ঢাকার চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা সমিতির ‘সপ্তম চাঁপাই উৎসবের’ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে তিনি একথা বলেন।

জেলা সমিতির সভাপতি মো. নুরুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন সমাজকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ, সংসদ সদস্য গোলাম মোস্তফা বিশ্বাস, সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের সচিব জিল্লার রহমান, চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা সমিতির সাধারণ সম্পাদক উজির আলী প্রমুখ। আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের প্রধান প্রসিকিউটর গোলাম আরিফ টিপুসহ চাঁপাইনবাবগঞ্জের কয়েকজন বিশিষ্ট ব্যক্তিকে অনুষ্ঠানে সংবর্ধনা দেওয়া হয়।

 দিনব্যাপী এ উৎসবে বেশ কয়েকটি স্টলে চাঁপাইনবাবগঞ্জের ঐতিহ্যবাহী বিভিন্ন সামগ্রী প্রদর্শনের পাশাপাশি সেগুলো বিক্রিও করা হয়।

মসিউর রহমান বলেন, আমাদের সংবিধানে যে অসাম্প্রদায়িকতার কথা আছে, এটাকে অনেকে মিথ্যা বা অনেকে ভুল ব্যাখ্যা করেন। এটা ধর্মহীনতা নয়, এটা ধর্মের প্রতি সহিষ্ণুতা। তিনি বলেন, ১৯৭২ সালে প্রণীত সংবিধানে রাষ্ট্র পরিচালনার মূলনীতি হিসেবে গৃহীত হয়েছিল ‘ধর্ম নিরপেক্ষতা’। পঁচাত্তরে বঙ্গবন্ধু হত?্যাকাণ্ডের পর ক্ষমতা নিয়ে জিয়াউর রহমান সংবিধান থেকে ‘ধর্মনিরপেক্ষতা’ বাদ দিয়ে সেখানে ‘আল্লাহর ওপর পূর্ণ আস্থা’র কথা বসান। এরপর আরেক সামরিক শাসক এইচ এম এরশাদ অষ্টম সংশোধনী এনে সংবিধানে রাষ্ট্রধর্ম ইসলাম যোগ করেন। তিনি বলেন, বাংলাদেশের অসামপ্রদায়িকতার ‘মূল লক্ষ্য’ হলো ধর্মীয় সহিষ্ণুতা। আয়োজকদের দাবির প্রেক্ষিতে মসিউর রহমান চাঁপাইনবাবগঞ্জ থেকে ঢাকায় আন্তঃনগর ট্রেন চালুর বিষয়ে সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে তিনি কথা বলবেন বলে প্রতিশ্রুতি দেন।

up-arrow