Bangladesh Pratidin

প্রকাশ : শনিবার, ১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ টা প্রিন্ট ভার্সন আপলোড : ১ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০৩:০০
যুবলীগ নেতা হত্যা মামলায় প্রধান আসামি মন্ত্রীপুত্র
ময়মনসিংহ প্রতিনিধি
bd-pratidin

ময়মনসিংহ মহানগর যুবলীগের সদস্য সাজ্জাদ আলম শেখ আজাদ ওরফে আজাদ শেখ (৩৩) হত্যাকাণ্ডের এক মাস পর হাই কোর্টের নির্দেশে অবশেষে মামলা নিয়েছে পুলিশ। গতকাল রাতে কোতোয়ালি মডেল থানা মামলাটি নথিভুক্ত করে। মামলায় মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও ধর্মমন্ত্রীর ছেলে মোহিত উর রহমান শান্ত প্রধান আসামি। কোতোয়ালি মডেল থানার ওসি মাহমুদুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, এর আগে গত মাসের ২ তারিখ মন্ত্রীপুত্রসহ ২৫ জনের নাম উল্লেখ ও অজ্ঞাত আরও ৮/১০ জনকে বিবাদী করে এজাহার গ্রহণের আবেদন করেন নিহতের স্ত্রী দিলরুবা আক্তার দিলু। 

সূত্র মতে, গত বৃহস্পতিবার হাই কোর্ট আজাদ শেখ হত্যা মামলার এজাহার গ্রহণ করতে পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছিল। এ ছাড়াও ‘মামলা না নেওয়া কেন আইনগত কর্তৃত্ব বহির্ভূত ঘোষণা করা হবে না’— তা জানতে চেয়ে স্বরাষ্ট্র সচিব, পুলিশ মহাপরিদর্শক, ময়মনসিংহ কোতোয়ালি মডেল থানার ওসিসহ সংশ্লিষ্টদের প্রতি রুল জারি করেছে আদালত। বিচারপতি শেখ মো. জাকির হোসেন ও বিচারপতি খিজির হায়াত সমন্বয়ে গঠিত অবকাশকালীন বেঞ্চ এ আদেশ দেয়।

গত ৩১ জুলাই সকাল থেকে আকুয়া মড়লপাড়া এলাকায় আজাদ শেখ ও ফরিদ শেখের মধ্যে থেমে থেমে সংঘর্ষ ও গোলাগুলি চলছিল। এক পর্যায়ে আজাদ শেখকে তুলে নিয়ে যায় প্রতিপক্ষরা। পরে দুপুরে তাকে গুলিবিদ্ধ ও জবাই করা অবস্থায় স্থানীয় নাজির বাড়ি এলাকার একটি মসজিদের পাশে ফেলে রেখে যায় হত্যাকারীরা।

এই পাতার আরো খবর
up-arrow