Bangladesh Pratidin

ঢাকা, শনিবার, ২১ জানুয়ারি, ২০১৭

প্রকাশ : ২০ জুলাই, ২০১৬ ১০:২১
আপডেট : ২০ জুলাই, ২০১৬ ১০:৩৭
জাতিসংঘে 'অভিবাসীদের কল্যাণ ও উন্নয়ন' কর্মশালায় বাংলাদেশের প্রশংসা
এনআরবি নিউজ, নিউইয়র্ক থেকে:
জাতিসংঘে 'অভিবাসীদের কল্যাণ ও উন্নয়ন' কর্মশালায় বাংলাদেশের প্রশংসা
পররাষ্ট্র সচিব শহীদুল হক। ছবি: এনআরবি নিউজ।

নিউইয়র্কে জাতিসংঘ সদর দপ্তরে মঙ্গলবার বাংলাদেশের সভাপতিত্বে ‘গ্লোবাল ফোরাম ফর মাইগ্রেশন অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট’ (Global Forum for Migration and Development/GFMD)-এর তৃতীয় থিমেটিক ওয়ার্কশপ (Thematic Workshop) অনুষ্ঠিত হয়। এই কর্মশালার আয়োজনের মাধ্যমে মাইগ্রেশন ফোরামের নেতৃত্ব গ্রহণের পরে বাংলাদেশের হাত ধরে জাতিসংঘ সদর দপ্তরে সংস্থাটির আনুষ্ঠানিক পদচারণা শুরু হল। এই কর্মশালার মূল প্রতিপাদ্য ছিল ‘শান্তি, স্থিতি এবং প্রবৃদ্ধির জন্যে অভিবাসন (Migration for Peace, Stability and Growth)।  

সংস্থার বর্তমান চেয়ার হিসেবে কর্মশালায় পররাষ্ট্র সচিব মো. শহীদুল হক সভাপতি এবং প্রধান সঞ্চালকের ভূমিকা পালন করেন। জাতিসংঘের ডেপুটি সেক্রেটারি জেনারেল ইয়ান ইলিয়াসন, জাতিসংঘ মহাসচিবের বিশেষ উপদেষ্টা কারেন আবু জায়েদ ও আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থার উপ-মহাপরিচালক বিশেষ অতিথি হিসেবে এবং ইউরোপীয় ইউনিয়নের উন্নয়ন বিষয়ক কমিশনার নেভিন মিমিকা ও যুক্তরাষ্ট্রের মাইগ্রেশন পলিসি ইন্সটিটিউটের অভিবাসন বিশেষজ্ঞ ক্যাটলিন নিউল্যান্ড এই ওয়ার্কশপের মূল বক্তব্য উপস্থাপন করেন। জাতিসংঘ মহাসচিবের আন্তর্জাতিক অভিবাসন বিষয়ক বিশেষ প্রতিনিধি স্যার পিটার সাদারল্যান্ড (ভিডিও লিংকের মাধ্যমে লন্ডন থেকে সরাসরি) ওয়ার্কশপের আলোচনায় যোগদান করেন।

সংস্থাটির তৃতীয় বিষয়ভিত্তিক এই ওয়ার্কশপকে কেন্দ্র করে নিউইয়র্কের কূটনৈতিক মহলে বিশেষ আগ্রহ পরিলক্ষিত হয়। এতে জাতিসংঘের সদস্য রাষ্ট্র, জাতিসংঘ সচিবালয়, বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংস্থা, এনজিও ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিদের সরব উপস্থিতি লক্ষ্য করা যায়। ডেপুটি সেক্রেটারি জেনারেল ইয়ান ইলিয়াসন এবং পিটার সাদারল্যান্ড উভয়েই সংস্থাটির অভিবাসন কেন্দ্রিক প্রক্রিয়াকে সঠিক পথে এগিয়ে নেয়ার জন্য বাংলাদেশের গৃহীত বিভিন্ন প্রচেষ্টা ও উদ্যোগের কথা পূনর্ব্যক্ত করেন এবং এই কর্মযজ্ঞের সফল পরিচালনায় পররাষ্ট্র সচিব মো. শহীদুল হকের গঠনমূলক ও দূরদর্শী নেতৃত্বের প্রশংসা করেন। জাতিসংঘে বাংলাদেশ স্থায়ী মিশনের স্থায়ী প্রতিনিধি ও রাষ্ট্রদূত মাসুদ বিন মোমেন সমাপনী বক্তব্য প্রদান করেন।

 

বিডি-প্রতিদিন/ ২০ জুলাই, ২০১৬/ আফরোজ

আপনার মন্তব্য

সর্বশেষ খবর
up-arrow